আরব-ইসলামিক-আমেরিকান শীর্ষ সম্মেলনে সন্ত্রাসবিরোধী ঐক্য গড়ার প্রত্যয়

বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পসহ আরব ও মুসলিম বিশ্বের ৫৭ জন রাষ্ট্র ও সরকারপ্রধানরা

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ এই প্রথমবারের মতো সৌদি আরবের রাজধানী রিয়াদে অনুষ্ঠিত হলো আবর-ইসলামিক-আমেরিকান শীর্ষ সস্মেলন। রবিবার বিকেলে রিয়াদের বাদশা আবদুল আজিজ আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে এ সম্মেলন অনু্ষ্ঠিত হয়।

এই সম্মেলনের উদ্বোধন করেন সৌদি বাদশাহ সালমান বিন আবদুল আজিজ আল সউদ। প্রথমবারের মতো হওয়া এই সম্মেলনে অংশ নিয়েছেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পসহ আরব ও মুসলিম বিশ্বের ৫৭ জন রাষ্ট্র ও সরকারপ্রধানরা।

বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী সম্মেলনস্থলে পৌঁছালে সৌদি বাদশাহ তাঁকে স্বাগত জানান। এই সময় দুই নেতা শুভেচ্ছাও বিনিময় করেন।

এই সম্মেলনে আরও যারা অংশ নিয়েছেন, তাদের মধ্যে ছিলেন- কুয়েত, কাতার এবং সংযুক্ত আরব-আমিরাতের আমীর, বাহরাইনের বাদশাহ, ব্রুনাই দারুসসালামের সুলতান, মিশর, উজবেকিস্তান, লেবানন, ইন্দোনেশিয়া, বেনিন, মৌরিতানিয়া, ফিলিস্তিন, তিউনেশিয়া, ইরাক ও নাইজারের প্রেসিডেন্ট, পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী, আলজেরিয়া পার্লামেন্টের চেয়ারম্যান ও উগান্ডার পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

সৌদি বাদশাহর উদ্বোধনী ভাষণের পর মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন। বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রবিবার রাতে শীর্ষ সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন।

শীর্ষ সম্মেলনের মূল লক্ষ্য হলো বিশ্বব্যাপী সন্ত্রাস এবং জঙ্গিবাদের চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় নতুন অংশীদারত্ব প্রতিষ্ঠা, সহিষ্ণুতা এবং সৌহার্দ্যের সম্প্রসারণ, শান্তি ও স্থিতিশীলতা নিশ্চিতকরণের প্রচেষ্টা আরও জোরদার করা। এই শীর্ষ সম্মেলনে আগত রাষ্ট্রপ্রধানরা সন্ত্রাসবিরোধী ঐক্য গড়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন, আমাদের সন্ত্রাসকে রুখতে হবে। ইসলাম ধর্মকে নয়, আমরা সন্ত্রাসকে রুখে দিতে চাই। কোনো ধর্ম বা বর্ণর বিরুদ্ধে আমাদের প্রতিবাদ নয়, আমাদের প্রতিবাদ সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে। আর এটি করতে আমরা সকলেই ঐক্যবদ্ধ।

Advertisements
Loading...