সাঁতার না জানলে ডিগ্রি দেবে না একটি চীনা বিশ্ববিদ্যালয়!

এবার চীনা একটি বিশ্ববিদ্যালয় এমন একটি শর্ত আরোপ করেছে

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ এবার চীনা একটি বিশ্ববিদ্যালয় শর্ত জুড়ে দিয়েছে যে শিক্ষার্থীদের অবশ্যই সাঁতার জানতে হবে। নইলে ডিগ্রি দেবে না ওই চীনা বিশ্ববিদ্যালয়!

সাঁতার জানা সকলের জন্যই একটি জরুরি কাজ সেটি বলার অপেক্ষা রাখে না। আর তাই এবার চীনা একটি বিশ্ববিদ্যালয় এমন একটি শর্ত আরোপ করেছে যে, তাতে করে যেসব শিক্ষার্থী ওই বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষা নিতে যাবেন তাদেরকে অবশ্যই সাঁতার শিখতে হবে। কারণ সাঁতার না জানলে তাদের ডিগ্রি দেওয়া হবে না।

চীনের অন্যতম নামী একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির জন্য আবেদনকারী ছাত্র-ছাত্রীদের বলা হয়েছে যে, স্নাতক ডিগ্রি পেতে হলে তাদেরকে অবশ্যই সাঁতার শিখতে হবে।

শিংহুয়া নামে একটি বিশ্ববিদ্যালয়কে বলা হয় ‘প্রাচ্যের হার্ভার্ড’। তাদের গ্রাজুয়েট ডিগ্রির সঙ্গে সাঁতার শেখাকে এভাবে যুক্ত করার সিদ্ধান্ত নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন অনেকেই।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অনেকেই বলেছেন, যে দেশ এখন খরা মোকাবিলা করছে- সেখানে এই পদক্ষেপ নেওয়ার কী যুক্তি রয়েছে?

একজনের প্রশ্ন হলো, চীনে যেসব এলাকায় নদী বা সাগর নেই সেখানকার ছাত্রদের তাহলে কি হবে? তবে বিশ্ববিদ্যালয়ে বলছে, সাঁতার একটি জীবনরক্ষাকারী দক্ষতা, এটি শারীরিক ফিটনেসও বাড়ায়। তাছাড়া দেশের সেরা মাথাওয়ালা যারা- তাদেরকে সুইমিং পুলে নিজেদের স্ব স্ব যোগ্যতা প্রমাণ করতে হবে।

মজার ব্যাপার হলো, এই বিশ্ববিদ্যালয়ে ডিগ্রির জন্য সাঁতারকে একটি পূর্বশর্ত করা হয়েছিল অনেক পূর্বে- ১৯১৯ সালে। তবে পরে এটি আবার বাদ দেওয়া হয়। যার একটা কারণ ছিল বেইজিং-এ সুইমিং পুলের অভাব। তবে সম্প্রতি প্রকাশিত নতুন নিয়মে বলা হয়েছে যে, নতুন ছাত্রদের যে কোন ধরণের সাঁতারে অন্তত ৫০ মিটার পার হওয়ার দক্ষতা থাকতে হবে। ভর্তি পরীক্ষার সময় যদি কেও সাঁতার না জানে, তাহলে তাকে স্নাতক ডিগ্রি পাবার পূর্বেই তা শিখে নিতে হবে।

Advertisements
Loading...