The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

এসএসসিতে গড় পাসের হার ৭৭.৭৭ শতাংশ: যেভাবে পাওয়া পাবে পরীক্ষার ফলাফল

শিক্ষা বোর্ডগুলোর ওয়েবসাইটে ও সেইসঙ্গে যেকোনো মুঠোফোন নম্বর থেকে এসএমএস (খুদেবার্তা) পাঠিয়ে পরীক্ষার্থীরা ফলাফল জানতে পারবেন

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে। সকালে শিক্ষামন্ত্রী প্রধানমন্ত্রীর হাতে এসএসসির ফলাফলের সারসংক্ষেপ হস্তান্তর করেন। এসএসসিতে গড় পাসের হার ৭৭.৭৭ শতাংশ: জিপিএ ৫ পেয়েছে ১ লক্ষ ১০ হাজার ৬শত ২৯ জন।

এসএসসিতে গড় পাসের হার ৭৭.৭৭ শতাংশ: যেভাবে পাওয়া পাবে পরীক্ষার ফলাফল 1

এ বছর মাদ্রাসা বোর্ডের পাসের হার ৭০. ৮৯ শতাংশ। অপরদিকে কারিগরী শিক্ষা বোর্ডের পাসের হার ৭১.৯৬ শতাংশ।

শিক্ষা বোর্ডগুলোর ওয়েবসাইটে ও সেইসঙ্গে যেকোনো মুঠোফোন নম্বর থেকে এসএমএস (খুদেবার্তা) পাঠিয়ে পরীক্ষার্থীরা ফলাফল জানতে পারবেন।

শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ সকাল ১০টায় গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতে এসএসসির ফলাফলের সারসংক্ষেপ হস্তান্তর ধরেন। তারপর দুপুর ১টায় সচিবালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে পরীক্ষার বিস্তারিত ফল ঘোষণা করবেন। এরপরই মুঠোফোনো এসএমএস-এর মাধ্যমে ফল জানা যাবে।

এসএমএস-এ যেভাবে পাওয়া পাবে পরীক্ষার ফলাফল

যে কোনো মুঠোফোন অপারেটর হতে SSC/DAKHIL লিখে স্পেস দিয়ে বোর্ডের নামের প্রথম ৩টি অক্ষর লিখে স্পেস দিয়ে তারপর রোল নম্বর লিখে আবার স্পেস দিয়ে ২০১৮ লিখে ১৬২২২ নম্বরে এসএমএস পাঠিয়ে ফলাফল জানা যাবে।

শিক্ষা বোর্ডগুলোর ওয়েবসাইট http://www.educationboardresults.gov.bd হতেও পরীক্ষার্থীরা ফলাফল জানতে পারবেন।

অপরদিকে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো www.educationboardresults.gov.bd ওয়েবসাইটে গিয়ে পরীক্ষার ফলাফল ডাউনলোড করতে পারবেন। বোর্ড হতে ফলাফলের কোনো হার্ডকপি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে সরবারহ করা হবে না বলে জানানো হয়েছে।

ফল পুনঃনিরীক্ষা করতে হবে যেভাবে

মুঠোফোন অপারেটর টেলিটক হতে আগামীকাল অর্থাৎ ৭ মে হতে ১৩ মে পর্যন্ত এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফলাফলের পুনঃনিরীক্ষার আবেদন করা যাবে। ফল পুনঃনিরীক্ষণের আবেদন করতে হলে RSC লিখে স্পেস দিয়ে তারপর বোর্ডের নামের প্রথম তিনটি অক্ষর লিখে স্পেস দিয়ে রোল নম্বর লিখে তারপর স্পেস দিয়ে বিষয় কোড লিখে ১৬২২২ নম্বরে পাঠিয়ে দিতে হবে।

ফিরতি এসএমএসে ফি বাবদ কতো টাকা কেটে নেওয়া হবে- সেটি জানিয়ে একটি পিন নম্বর (পার্সোনাল আইডেন্টিফিকেশন নম্বর) দেওয়া হবে। আবেদনে সম্মত থাকলে RSC লিখে তারপর স্পেস দিয়ে YES লিখে স্পেস দিয়ে পিন নম্বরটি লিখে স্পেস দিয়ে যোগাযোগের জন্য একটি মোবাইল নম্বর লিখে ১৬২২২ নম্বরে এসএমএস পাঠাতে হবে। প্রতিটি বিষয় ও প্রতি পত্রের জন্য ১২৫ টাকা হারে চার্জ কাটা যাবে। তাই সেই পরিমাণ টাকা রেখে তবেই এই কাজগুলো করতে হবে।

অপরদিকে যেসব বিষয়ের দুটি পত্র (যেমন- প্রথম ও দ্বিতীয় পত্র) রয়েছে, সেসব বিষয়ের ফলাফলের পুনঃনিরীক্ষার আবেদন করলে দুটি পত্রের জন্য মোট ২৫০ টাকা ফি দিতে হবে। একই এসএমএসে একাধিক বিষয়েরও আবেদন করা যাবে, এক্ষেত্রে বিষয় কোড পর্যায়ক্রমে ‘কমা’ দিয়ে লিখতে হবে।

উল্লেখ্য, গত ১ ফেব্রুয়ারি শুরু হয়ে ২৫ ফেব্রুয়ারি এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার তত্ত্বীয় ও ২৬ ফেব্রুয়ারি হতে ৪ মার্চ ব্যবহারিক পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। এ বছর ১০টি শিক্ষা বোর্ডের আওতায় ১ ফেব্রুয়ারি হতে অনুষ্ঠিতব্য এসএসসি ও সমমান পরীক্ষায় অংশ নেয় ২০ লাখ ৩১ হাজার ৮৯৯ জন শিক্ষার্থী। এর মধ্যে ছাত্র হলো ১০ লাখ ২৩ হাজার ২১২ জন। ছাত্রী হলো ১০ লাখ ৮ হাজার ৬৮৭ জন। ২০১৭ সালের তুলনায় এ বছর পরীক্ষার্থী বেড়েছে ২ লাখ ৪৫ হাজার ২৮৬ জন।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...