রোহিঙ্গা বিরোধী পোস্ট হতে ফেসবুক আয় করেছে ১৬০০ কোটি ডলার!

বিশাল অংকের অর্থ আয়ের লোভেই রোহিঙ্গা বিরোধী পোস্ট, মন্তব্য এবং ছবি সরিয়ে নিতে ধীরগতিনীতি গ্রহণ করে জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুক কর্তৃপক্ষ

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ মিয়ানমারে রোহিঙ্গাদের জাতিগত নির্মূলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে বিদ্বেষপূর্ণ এবং উস্কানিমূলক প্রচারণা চলছে অব্যাহতভাবে। সংবাদ মাধ্যম রয়টার্স ও যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার মানবাধিকার সেন্টারের অনুসন্ধানে বের হয়ে আসে এমন এক হাজারেরও বেশি পোস্ট ও ছবির তথ্য।

তাতে বলা হয়, বিশাল অংকের অর্থ আয়ের লোভেই রোহিঙ্গা বিরোধী পোস্ট, মন্তব্য এবং ছবি সরিয়ে নিতে ধীরগতিনীতি গ্রহণ করে জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুক কর্তৃপক্ষ।

জানা যায়, রাখাইনে রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর ওপর নির্যাতন, নিপীড়ন, হত্যা ও ধর্ষণের পেছনে শুরু থেকেই বড় প্লাটফর্ম হিসেবে কাজ করে আসছে ফেসবুক।

বলা হয়েছে, ২০১২ সালে উগ্র বৌদ্ধদের একটি পেইজ খোলার মধ্যদিয়েই ফেসবুকে রোহিঙ্গাবিরোধী প্রচারণার উত্থান ঘটে। ওই বছর দাঙ্গায় নিহত হয় ৮০ জন, গৃহহারা হয় কয়েক লাখ রোহিঙ্গা মুসলিম। এরপর গত বছরের আগস্টে আবারও রোহিঙ্গা নির্মূলে ফেসবুক ব্যবহার শুরু করে উগ্রপন্থিরা। যার পরিণতিতে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয় ৮ লাখেরও বেশি রোহিঙ্গা শরণার্থী।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...