The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

দেশে বা বিদেশে পাসপোর্ট হারিয়ে গেলে নতুন পাসপোর্ট পেতে যা করতে হবে

বিদেশ ভ্রমণ সহ কোন কাজে দেশের বাইরে যেতে চাইলে সর্ব প্রথম আপনার পাসপোর্ট থাকতে হবে।

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ বিদেশ ভ্রমণ সহ কোন কাজে দেশের বাইরে যেতে চাইলে সর্ব প্রথম আপনার পাসপোর্ট থাকতে হবে। পাসপোর্ট ছাড়া আপনি কোনভাবেই দেশের বাইরে যেতে পারবেন না। আবার দেশে প্রবেশও করতে পারবেন না। এখন বিষয় হচ্ছে কোন কারন বশত যদি আপনার পাসপোর্ট হারিয়ে যায় সেক্ষেত্রে আপনাকে পরতে হবে বিপাকে।

দেশে বা বিদেশে পাসপোর্ট হারিয়ে গেলে নতুন পাসপোর্ট পেতে যা করতে হবে 1

আমাদের দেশে ছিনতায়কারি এবং চোর-ডাকাতের কবলে পরে অনেকেই তাদের পাসপোর্ট হারিয়েছেন। পাসপোর্ট হারিয়ে যাওয়া খুবই মারাত্মক ব্যাপার। কেমন মারাত্মক একটু ক্লিয়ার করেই বলি। ধরুন আপনার পাসপোর্ট হারিয়ে গেল। এখন আপনার সেই পাসপোর্টটি কোন ব্যক্তি বড় ধরণের কোন অপরাধ করে সেখানে আপনার পাসপোর্টটি ফেলে রেখে গেল। পরের দিন পুলিশ সেই অপরাধের এক নম্বর আসামী হিসেবে আপনাকেই আগে গ্রেফতার করবে। আজ আমরা জানবো পাসপোর্ট হারিয়ে গেলে আপনার করণীয় কী এবং কিভাবে আবার পাসপোর্ট সংগ্রহ করবেন।

১। পাসপোর্ট হারিয়ে গেলে প্রথমেই আপনাকে নিকটস্থ থানায় জিডি করতে হবে। এই জিডি করার মাধ্যমেই আপনি কোন ধরনের ফেক মামলা থেকে রক্ষা পেয়ে যাবেন। তবে জিডি করতে বেশি দেরি করবেন না। পাসপোর্ট হারিয়ে যাওয়ার যত তারাতাড়ি সম্ভব জিডি করবেন।

২। এখন নতুন পাসপোর্টের জন্য আবার আবেদন করতে হবে। আবেদনের সত্যায়িত কপির সাথে জিডির মূল কপি এবং হারিয়ে যাওয়া পাসপোর্টের ফটোকপি স্টাপ্লার করে পাসপোর্ট অফিসে জমা দিতে হবে। অনেকেই আবার পাসপোর্টের পর্যাপ্ত ফটোকপি রাখেন না। সেক্ষেত্রে আপনাকে ঝামেলায় পড়তে হবে। তাই আগে থেকেই পাসপোর্টের বেশ কিছু ফটোকপি করে রাখুন।

৩। আপনার যদি জরুরী ভিত্তিতে পাসপোর্ট প্রয়োজন হয়, তবে আবেদন জমা দেওয়ার ৭ দিনের মধ্যেই পাসপোর্ট পেতে ৬৯০০ টাকা জমা দিতে হবে। আর স্বাভাবিক সময়ে পাসপোর্ট নিতে হলে ৩৪৫০ টাকা জমা দিতে হবে। সেক্ষেত্রে আপনি পাসপোর্ট পাবেন ২১ দিনের মধ্যে।

পাসপোর্টের ফি সোনালী ব্যাংক সহ ট্রাস্ট ব্যাংক, ওয়ান ব্যাংক, ঢাকা ব্যাংক, ব্যাংক এশিয়া ও প্রিমিয়ার ব্যাংকে জমা দিতে পারবেন।

যদি বিদেশে পাসপোর্ট হারিয়ে যায় তবে হারিয়ে যাওয়া এলাকার থানায় একটি জিডি করে, জিডি কপি নিয়ে ওই দেশে অবস্থিত বাংলাদেশ দুতাবাসে যোগাযোগ করতে হবে। সেখানে

১। হারানো পাসপোর্টের ফটোকপি
২। হারানো পাসপোর্টের ভিসা এরাইভাল হওয়ার কপি
৩। কয়েক কপি ছবি
৪। জিডি কপি এবং
৫। সি ফর্ম অর্থাৎ আপনি কোন হটেলে আছেন তার একটি প্রমাণ পত্র সহ ট্রাভেল পারমিট ইস্যু করার জন্য মিনিস্টার কাউন্সিলর বরাবরে একটি আবেদন করতে হবে।

সব কিছু ঠিক থাকলে মিনিস্টার কাউন্সিলর আপনাকে ট্রাভেল পারমিট ইস্যু করবে। যা পাসপোর্টের মতই ব্যবহার করে আপনি ট্রাভেল করতে পারবেন। তবে মনে রাখবেন কোন গুরুত্বপূর্ণ ডকুমেন্টের অবশ্যই স্ক্যান কপি বা ছবি গুগল ড্রাইভ বা ওয়ান ড্রাইভে সংরক্ষণ করে রাখা উচিৎ। তাহলে বিশ্বের যেকোন জায়গা থেকে আপনি এগুলো ব্যবহার করতে পারবেন।

Loading...