The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

এক ঘণ্টার ভিডিওতে ধরা পড়লো সূর্যের ১০ বছরের যাত্রা! [ভিডিও]

সৌরজগতের ‘রাজা’র প্রকৃত চরিত্র তুলে ধরার কাজটি মোটেও সহজ ছিল না

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ কঠিন একটি কাজ। সূর্য অর্থই হলো পৃথিবীর বুকে আগুনের লক্ষ তিরের সমাহার, শক্তির এক সমষ্টি। আর তার গহ্বরে লুকিয়ে রয়েছে অগ্নিকুণ্ড। তারপরও এই কঠিন যাত্রা সম্পন্ন হয়েছে মাত্র এক ঘণ্টার ভিডিওতে!

এক ঘণ্টার ভিডিওতে ধরা পড়লো সূর্যের ১০ বছরের যাত্রা! [ভিডিও] 1

সৌরজগতের ‘রাজা’র প্রকৃত চরিত্র তুলে ধরার কাজটি মোটেও সহজ ছিল না। তবে সেই চ্যালেঞ্জ নিয়ে ওই কঠিন ও নজিরবিহীন কাজটি করে ফেললো মার্কিন মহাকাশ গবেষণা কেন্দ্র নাসা।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির এক প্রতিবেদনে বলা হয়, গত ১০ বছর ধরে নাসার সোলার ডাইনামিকস অবজার্ভেটরি সূর্যের ৪২.৫০ কোটি উচ্চ রেজুলেশনের ছবি সংগ্রহ করে। সেসব ছবির সময়কে ত্বরাণ্বিত করে (যাকে বলে টাইম ল্যাপ্স) মাত্র এক ঘণ্টায় সূর্যের এক দশকের ভিডিওচিত্র তুলে ধরা হয়।

‘আ ডিকেড অব সান’ শিরোনামে ওই ভিডিওটি আপলোডের মাত্র কয়েক মুহূর্তেই ভাইরাল হয়ে যায়। নাসার এই গবেষণা নতুন দিগন্ত খুলে দেবে বলে মনে করেছেন সংশ্লিষ্ট গবেষকরা। সূর্যের আচরণ গবেষণায় নতুন মাত্রা যোগ দেবে এই টাইম ল্যাপ্স ভিডিও এবং সাড়ে ৪২ কোটি ছবি। যে কারণে আরও সহজ হলো সূর্যের চৌম্বক ক্ষেত্র, সুমেরু , কুমেরুর ও সৌরজগতের ওপর প্রভাব নিয়ে গবেষণার বিষয়টি।

নাসার ওই ভিডিওটি দেখে বিজ্ঞানীরা ধারণা করতে পারবেন যে, ১১ বছরের সৌরচক্রে কীভাবে ওঠানামা ঘটেছে সূর্যের। সেইসঙ্গে নিকটবর্তী নক্ষত্রগুলো কীভাবে সৌরজগতকে প্রভাবিত করে।

বিজ্ঞানীদের ধারণা মতে, সূর্যের চৌম্বকক্ষেত্র একটি চক্র পরিভ্রমণ করে থাকে। তাকেই সৌরচক্র বলা হয়। প্রতি ১১ বছর অন্তর অন্তর সূর্যের চৌম্বকক্ষেত্র স্থান পরিবর্তন করে থাকে। এর উত্তর ও দক্ষিণ মেরু তখন জায়গা বদল করে। সেই চক্রে দেখা গেছে যে, ৬১ মিনিটের মধ্যে একটা পুরো দশকের কাজ সেরে ফেলেছে সূর্য!

দেখুন ভিডিওটি

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...