The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

আবারও পরিচালনায় এলেন অভিনেতা আনিসুর রহমান মিলন

সম্প্রতি আবারও ঈদের জন্য ৩টি নাটক পরিচালনা করলেন আনিসুর রহমান মিলন

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ বিনোদন জগতের জনপ্রিয় ব্যক্তিত্ব আনিসুর রহমান মিলন। মঞ্চে, টিভি পর্দায় এবং বড় পর্দায় একেবারেই নিজেকে বদলে নতুন এক অভিনেতা হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করেছেন নিজেকে। আবারও পরিচালনায় এলেন জনপ্রিয় এই অভিনেতা।

আবারও পরিচালনায় এলেন অভিনেতা আনিসুর রহমান মিলন 1

বড়পর্দা ও ছোটপর্দা- দু’জায়গাতেই সমানভাবে অভিনয় করে চলেছেন আনিসুর রহমান মিলন। যদিও এর আগেই অভিনেতা পরিচয় ছাপিয়ে নাম লিখিয়েছেন পরিচালক হিসেবে। ইতিপূর্বে বেশ কিছু নাটকও পরিচালনা করেছেন।

এরই ধারাবাহিকতায় সম্প্রতি আবারও ঈদের জন্য ৩টি নাটক পরিচালনা করলেন আনিসুর রহমান মিলন। এজাজ মুন্না রচিত এটিএন বাংলার জন্য নির্মিত হয়েছে আংশিক লকডাউনের গল্প নিয়ে নাটক ‘মুনিরা মঞ্জিল’। তবে নাটকটির নাম পরিবর্তনও হতে পারে।

এই নাটকে অভিনয় করেছেন আনিসুর রহমান মিলনের সঙ্গে আরও অভিনয় করেছেন জাকিয়া বারী মম, জয়রাজ, মুনিরা মিঠু, সামান্তা এবং প্রীতি।

মাসুম শাহরিয়ার রচিত বৈশাখী টিভির জন্য নির্মাণ করছেন ‘গালিবার গোপ্পো’। এতে অভিনয় করেছেন আনিসুর রহমান মিলন, শবনাম ফারিয়া, মুনিরা মিঠু, লিটু করিম এবং মিথিলা।

অপরদিকে জাকির হোসেন উজ্জ্বল রচিত ‘দুই মজনু’ নাটকটি আগামী ২৫ ও ২৬ তারিখ রাজধানীর বিভিন্ন লোকেশনে চিত্রায়িত হবে। আরটিভির জন্য নির্মিত এই নাটকটিতে দেখা যাবে আনিসুর রহমান মিলনের সঙ্গে জাহিদ হাসান এবং ঊর্মিলা শ্রাবন্তী করকে।

এই নাটক ৩টি সম্পর্কে অভিনেতা ও পরিচালক আনিসুর রহমান মিলন সংবাদ মাধ্যমকে তার এক প্রতিক্রিয়ায় বলেছেন, ‘আসছে ঈদের জন্য বেশ কয়েকটি নাটকে আমি অভিনয় করেছি। তবে অভিনয়ের পাশাপাশি বিশেষ দিবসের নাটক পরিচালনা করতে বেশ ভালোই লাগে। মনের মধ্যে একটা সুপ্ত ইচ্ছে হতে নাটক পরিচালনা করছি।

প্রতিটি নাটকের গল্পই সুন্দর এবং মনের মতো ৩টি নাটক নির্মাণ করছি। প্রত্যেকটি নাটকের শিল্পী নির্বাচনের বিষয়টিও যথাযথভাবেই করতে পেরেছি। তবে পরিচালনার পাশাপাশি চ্যানেলের আগ্রহের কারণে প্রতিটি নাটকে আমাকে অভিনয়ও করতে হয়েছে। স্বাস্থ্যবিধি মেনেই নাটকগুলোর শুটিং করছি। আমার বিশ্বাস দর্শকরা নাটকগুলো দেখে হতাশ হবেন না।’

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...