The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

এমন এক মোবাইল চার্জার যে এক চার্জেই চলবে ৩ মাস!

প্রতিদিন মোবাইল চার্জ দেওয়া অনেকের জন্যই বিরক্তিকর একটি ব্যাপার

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ বর্তমান সময়ে অতি প্রয়োজনীয় একটি পণ্য হলো মোবাইল। এই প্রয়োজনীয় বস্তুটিতে সচল রাখতে হলে প্রতিদিনই চার্জ দিতে হয়। তবে এবার এমন এক মোবাইল চার্জার এসেছে যে এক চার্জেই চলবে ৩ মাস!

এমন এক মোবাইল চার্জার যে এক চার্জেই চলবে ৩ মাস! 1

প্রতিদিন মোবাইল চার্জ দেওয়া অনেকের জন্যই বিরক্তিকর একটি ব্যাপার। এবার মোবাইল চার্জ দেওয়ার সেই বিরক্তির অবস্থার অবসান হতে চলেছে। সম্প্রতি ‘ম্যাগনেটোইলেক্ট্রিক মাল্টিফেরোইক’ নামে নতুন একটি উপকরণ আবিষ্কার করেছেন একদল মার্কিন গবেষক। যা দিয়ে মোবাইল একবার চার্জ দিলেই চলবে টানা তিন মাস! অর্থাৎ আপনার মোবাইলটি বছরে মাত্র ৪ বার চার্জ দিলেই চালাতে পারবেন পুরো এক বছর।

জানা গেছে, ‘ম্যাগনেটোইলেক্ট্রিক মাল্টিফেরোইক’ নামে নতুন উপকরণ আবিষ্কার করেছেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মিশিগান ও করনেল বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা। ওই উপকরণটি ব্যাটারিকে বেশি শক্তিশালী করবে। উপকরণটি একটি পাতলা পোলার ফিল্ম যা সরু এনার্জি পালসের মাধ্যমে পজিটিভ ও নেগেটিভের মধ্যে এক সংযোগ সৃষ্টি করবে। নতুন এই উপকরণটি কম্পিউটারকে শক্তির উত্থান পরিচালনার সুযোগও সৃষ্টি করে দেবে।

নতুন এই উপকরণ যুক্ত হলে ব্যাটারি এখনকার অবস্থা হতে ১০০ শতাংশ বেশি শক্তি সাশ্রয়ী হিসেবে বিবেচিত হবে। তাহলে বারবার স্মার্টফোন চার্জ দেওয়ার ঝক্কি থেকেও বাঁচবে পুরো বিশ্ব।

দ্যা ইন্ডিপেন্ডেন্ট এর এক খবরে বলা হয়েছে, ম্যাগনেটোইলেক্ট্রিক মাল্টিফেরোইকযুক্ত এই ব্যাটারি ২০৩০ সালে বাজারে আসবে বলেও জানিয়েছেন মার্কিন গবেষকরা। ওই মোবাইলে পরিবেশের ক্ষতিও খুবই কম হবে এবং বিদ্যুৎ সাশ্রয়ও হবে। মোবাইলফোনও ১০০ শতাংশ কম শক্তিতে চলতে পারবে।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর

অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

Loading...