The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

আঁচল-জয়ের নতুন সিনেমার নাম ‘আয়না’

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ এই প্রথমবারের মতো সিনেমায় নাম ভূমিকায় অভিনয় করতে চলেছেন চিত্রনায়িকা আঁচল আঁখি। তার বিপরিতে থাকছেন চিত্রনায়ক জয়। সিনেমাটির নাম ‘আয়না’।

আঁচল-জয়ের নতুন সিনেমার নাম ‘আয়না’ 1

আয়না রূপে দেখা যাবে চিত্রনায়িকা আঁচলকে। এই সিনেমার মাধ্যমে দ্বিতীয়বারের মতো জুটি বাঁধতে চলেছেন আঁচল ও জয় চৌধুরী।

সিনেমাটি পরিচালনা করছেন খ্যাতিমান পরিচালক মনতাজুর রহমান আকবার। ইতিপূর্বে ওয়াজেদ আলী সুমনের ‘আজব প্রেম’ সিনেমায় জয় এবং আঁচলকে দেখা যায়। সেই হিসেবে এই জুটির এটি দ্বিতীয় চলচ্চিত্র।

গত ১৮ অক্টোবর রবিবার শুভ মহরতের মাধ্যমে ঢাকার অদূরে সাভারে স্বাস্থ্যবিধি মেনে নতুন চলচ্চিত্রের শুটিং শুরু হয়েছে। এই লটের শুটিং চলবে একটানা আগামী ৩০ অক্টোবর পর্যন্ত। তারপর ঢাকা এবং দেশের অন্যান্য লোকেশনেও শুটিং হবে।

সিনেমার গল্প সম্পর্কে মনতাজুর রহমান আকবার বলেছেন, ‘অর্থাভাবে মানুষের বাড়িতে কাজ করেন আয়না। এক সময় সে জমিদারের কু-নজরেও পড়েন। এই নিয়ে জটিলতা সৃষ্টি হয়। এভাবেই সিনেমার গল্প এগিয়ে যাবে।’

সিনেমাটি সম্পর্কে চিত্রনায়িকা আঁচল বলেছেন, ‘প্রথমবারের মতো আমি নাম ভূমিকায় অভিনয় করছি। গল্পের কারণেই সিনেমাটি করতে আগ্রহী হই। গ্রামীণ পটভূমি নিয়ে এর গল্পটি সাজানো হয়েছে। আয়না চলচ্চিত্রের জন্য নিজেকে নতুন করে প্রস্তুতও করেছি। ভালো চলচ্চিত্র এবং চরিত্র পেলে নিয়মিতভাবে কাজ করতে চাই।’

এই সিনেমা সম্পর্কে জয় চৌধুরী বলেছেন, ‘আমার চরিত্রটিতে আমাকে দেখা যাবে খেটে খাওয়া অজপারা গাঁয়ের একজন সাধারণ মানুষ হিসেবে। সৎ এবং নিষ্ঠাবান সব কিছুর মূলেই রয়েছে তার পরিবার। পরিবারের মুখে দু’বেলা ভাত দিতে অন্যর জমিতে কৃষি কাজ করি। একটা সময় কাজ করতে গিয়ে অন্যায় দেখতে পাওয়ার পর সেখানে অন্যায় এবং দুর্নীতির বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াই। বাড়ীর কাজের মেয়েকে অত্যাচার থেকে রক্ষা করি। পরবর্তীতে আমাদের মধ্যে ভালোবাসার একটি সম্পর্ক তৈরি হয়। ভালোলাগা হতে এক সময় ভালোবাসা। তারপর বিভিন্ন রূপ নিতে থাকে। এই সিনেমাতে দর্শকরা অনেক বার্তা পাবেন। অনেক কিছু শেখার রয়েছে এই সিনেমাটি হতে।’

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর

অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...