The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

যেভাবে বুঝবেন আপনার কল রেকর্ড হচ্ছে

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ মাঝে-মধ্যেই মোবাইলে কল রেকর্ডের ঘটনা ঘটে। কিন্তু আপনি সেটি কীভাবে বুঝবেন যে আপনার কথোপকথনের রেকর্ড হচ্ছে? আজ সেই বিষয়টি জেনে নিন।

যেভাবে বুঝবেন আপনার কল রেকর্ড হচ্ছে 1

অনেক সময় আপনার অনুমতি না নিয়েই অনেকেই কল রেকর্ড করেন। অনুমতি ছাড়া কল রেকর্ডিং বেআইনি হলেও অনেকেই নিয়মিত নিজের ফোন থেকে কল রেকর্ডিং করেন। মূলত, প্রমাণ রাখার জন্যই অনেকেই কল রেকর্ড মূলত একপ্রকার অভ্যস্ত করে ফেলেছেন। সেটা সেভ করে যথাসময়ে ফোনের ওপারের মানুষটিকে বিপদে ফেলাই হয়তো উদ্দেশ্য থাকে অনেক সময়। তবে ফোনের অপর প্রান্তে থাকা মানুষটি কোনওভাবেই তা অনুমানও করে উঠতে পারেন না।

যদিও আপনি চাইলেই সেটি ধরতে পারবেন। অর্থাৎ কেও যদি আপনার সঙ্গে ফোনে কথা বলার সময় তা রেকর্ড করেন, তাহলে আপনি সহজেই বুঝতে পারবেন। তার জন্য নির্দিষ্ট কিছু বিষয় আপনাকে অবশ্যই খেয়াল রাখতে হবে। ফোন কল রেকর্ড হলে কীভাবে বুঝবেন যে আপনার কলটি রেকর্ড হচ্ছে, সেই বিষয়টি আজ জেনে নিন।

নিয়মিতভাবে বিপ আওয়াজ

ফোনের অপর প্রান্তে থাকা মানুষটির অনুমতি না নিয়ে কল রেকর্ড করা বেআইনি একটি কাজ। সে কারণে বেশিরভাগ কোম্পানির ফোনে কল রেকর্ড করার সময় ওপারের মানুষটি নির্দিষ্ট সময় পর পর বিপ আওয়াজ শুনতে পান। কয়েক সেকেন্ড অন্তরই এই আওয়াজ হবে। ফোনে নিয়মিত এইরকম বিপ আওয়াজ শুনলে বুঝতে হবে, আপনার কলটি রেকর্ড করা হচ্ছে।

কলের শুরুতেই হবে লম্বা বিপ আওয়াজ

অনেক সময় ফোনের অপর প্রান্তের মানুষটি কল রেকর্ড করলে, কলের শুরুতেই লম্বা লম্বা বিপ আওয়াজ শুনতে পাবেন। এই রকম আওয়াজ শুনতে পেলেও বুঝতে হবে অপর প্রান্তের মানুষটি কল রেকর্ড করছেন। মনে রাখতে হবে যে, ফোনের শুরুতে লম্বা একটি বিপ আওয়াজ ও ফোন কল চলাকালীন পর পর বিপ আওয়াজ এই দুটার যে কোনও একটি আপনার কাছে কল রেকর্ডিংয়ের সংকেত হিসেবেও হাজির হতে পারে। দুটোর যে কোনও একটিই আপনার সন্দেহকে অবশ্যই সত্যি করে দিতে পারে।

কল রেকর্ডিং এ মেসেজ

গুগল ডায়ালারের মাধ্যমে ফোন কল রেকর্ড করলে, রেকর্ডিংয়ের শুরুতেই ইংরাজিতে সতর্কবার্তা দেওয়া শুরু হয়। রেকর্ডিং শুরুর সতর্কবার্তা শুনতে পেলেও আপনাকে বুঝতে হবে, আপনার কল রেকর্ড করা হচ্ছে। ফোন কলে কথা বলার সময় সেই কল রেকর্ড হচ্ছে কী না, সেই দিকে খেয়াল রাখা খুবই বিরক্তিকর একটি বিষয়! তবে সত্যিই কল রেকর্ড করা হচ্ছে কী না, তা জানার সব থেকে কার্যকরী উপায় হলো ফোনের অপর প্রান্তের মানুষটিকে একবার জিজ্ঞেস করে নেওয়া। আপনার যদি কোনও কারণে সন্দেহ হয়, আপনার রেকর্ড হচ্ছে, তাহলে আপনাকে একটি কাজ করতে হবে। আর সেটি হলো এমন কিছু বলা থেকে বিরত থাকা যা ভবিষ্যতে বিপদ ডেকে আনতে পারে। তাই এই বিষয়ে নিজেকেই সাবধান থাকতে হবে সব সময়। মোবাইলে কথা বলার শুরুতেই এই বিষয়ে আপনাকে সতর্ক হতে হবে।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের কাপড়ের মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

Loading...