ফোন না এলেও কখনও মনে হয় ফোন বাজছে!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ ফোন না এলেও কখনও কখনও মনে হতে পারে ফোন বাজছে! আপনার কি কখনও এমন মনে হয়েছে যে আপনি আপনার মোবাইল ফোনের রিং বাজতে শুনেছেন? আসলে ফোন কিন্তু আসেনি।

ringing phone

হয়তো এমন কখনও কখনও হতেই পারে। তাকে কিন্তু ভয় পাওয়ার কিছু নেই। কারণ হলো আপনি একা নন; আপনার মতো আরও অনেকেই রয়েছে যাদেরও এমন অভিযোগ রয়েছে।

আবার অনেক সময় এমনও মনে হতে পার যে, ভাইব্রেশন অপশনে থাকা আপনার ফোনটি কল না আসা সত্ত্বেও প্যান্টের পকেটে হঠাৎই যেনো কেঁপে উঠেছিলো।

অ্যামেরিকায় জর্জিয়া ইন্সটিটিউট অফ টেকনোলজির অধ্যাপক দার্শনিক ড. রবার্ট রোজেনবার্গার এ বিষয়ে বলেছেন, হ্যালুসিনেশন বা বিভ্রমের কারণে এমন ঘটনার সূত্রপাত ঘটতে পারে। উদ্বেগ-উৎকণ্ঠার কারণেই এমনটি হয়, যা খুব স্বাভাবিক একটি ঘটনা।

ড. রবার্ট রোজেনবার্গার আরও বলেন, প্রযুক্তি যেমন এই বিশ্বকে বদলে দিচ্ছে, ঠিক তেমনিভাবে পরিবর্তন ঘটাচ্ছে মানুষের মস্তিষ্কেও। আমাদের প্রাত্যহিক জীবনের ওপর প্রযুক্তির কি কি প্রভাব পড়ছে, তার ওপর একটি গবেষণা করেছেন রবার্ট রোজেনবার্গার।

ড. রবার্ট বলেছেন, মানুষের মধ্যে এমন একটি মনোভাবের তৈরি হয়েছে যে, এখনই ইমেইল বা এসএমএসের জবাব দিতে মরিয়া হয়ে থাকে, আর সেকারণেই মনে হয়ে থাকে যে ফোনটা বেজে উঠেছে!

ড. রবার্ট রোজেনবার্গার আরও বলেন, ‘এটাকে বলা হয় ফ্যান্টম ভাইব্রেশন। আপনার হয়তো মনে হলো যে, প্যান্টের পকেটে ফোনটা কেঁপে ওঠছে। তখন আপনি পকেট হতে ফোনটা বের করে দেখলেন যে, আপনাকে আসলেই কেও কল করেছে কীনা বা এসএমএস পাঠিয়েছে কি না। দেখলেন যে, না আসলে কেও আপনাকে ফোন করেনি। আবার কোনো এসএমএসও আসেনি। এটা আর কিছুই না, এটা হচ্ছে হ্যালুসিনেশন কিংবা বিভ্রম।’ ড. রবার্ট রোজেনবার্গার এ বিষয়টি নিয়ে ভীত হতে না করলেও এটি থেকে কিভাবে নিজেকে মুক্ত করা সম্ভব সে বিষয়ে কিছুই বলেননি।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...