পাকিস্তানকে ২টি যুদ্ধজাহাজ ‘উপহার’ দিলো চীন!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ পাকিস্তানকে ২টি যুদ্ধজাহাজ ‘উপহার’ দিলো চীন! কিন্তু কেনো? তাহলে কী ভারতকে নিয়ে কোনো ‘গোপন পরিকল্পনা’ করা হচ্ছে?

পাকিস্তানের বালুচিস্তান প্রদেশে গদর শহর অবস্থিত। এই বন্দর-শহরের পাশেই হলো আরব সাগর। গদরের মাহাত্ম্য ‘সিপিইসি’ হিসেবে, অর্থাৎ ‘চায়না-পাকিস্তান ইকনমিক করিডর’। চীন ও পাকিস্তানের ‘ইকনমিক করিডর’-এর একটি মুখ্য স্থান হলো এই বন্দর। গদর বন্দরটি, চিনের ‘ওয়ান রোড, ওয়ান বেল্ট’ প্ল্যানের একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ সংযোগস্থল হিসেবে প্রতিষ্ঠিত।

গদর বন্দরে কাজ শুরু হয় ২০১৬ সালের ১৪ নভেম্বর হতে। তবে ২০১৫-তেই এই বন্দরটি ৪৩ বছরের জন্য চীনকে ‘লিজ’ দেয় পাকিস্তান। এই লিজের শর্ত অনুযায়ী ২০৫৯ সাল পর্যন্ত গদর বন্দরের যাবতীয় কার্যকলাপ দেখবে চীন।

সংবাদ মাধ্যমের খবরে জানা যায়, মূলত ব্যবসার জন্যই এই ‘ওয়ান রোড, ওয়ান বেল্ট’-এর প্রকল্প মাথায় এসেছিলো চীনের। এরই অংশ হিসেবে ‘মেরিটাইম সিল্ক রোড’-এর ভাবনাটি আসে। পাকিস্তানের গদর বন্দর যে ভবিষ্যতে এই ব্যবসায়িক সম্পর্কে খুবই ফলপ্রসূ হবে, তা নিয়ে কোনও দ্বিমত নেই এই দেশ দুটির।

তাহলে প্রশ্ন হলো ব্যবসার সম্পর্কের সঙ্গে যুদ্ধ-জাহাজের কী দরকার? কেনোই বা চীন দু’টি এমন জাহাজ ‘উপহার’ দিলো পাকিস্তানকে? পাকিস্তানের দুই নদীর নামানুসারে ‘হিঙ্গোল’ ও ‘বাসল’ নামে জাহাজ দু’টির অভ্যর্থনার জন্য গদর বন্দরে উপস্থিত ছিলেন পাকিস্তানের নেভি ভাইস অ্যাডমিরল আরিফুল্লা হুসেইন। অনুষ্ঠানে উপস্থিত সকলের উদ্দেশ্যে তাঁর বক্তব্য ছিলো ঠিক এমন- চীনের দেওয়া এই জাহাজ দু’টির জন্য পাকিস্তানের নৌ-সেনা আরও মজবুত হলো।

‘সিপিইসি’ প্রকল্প অনুযায়ী, হিঙ্গোল এবং বাসল যুদ্ধজাহাজ হলেও, তাদের মূল দায়িত্ব এই জলপথের সুরক্ষা! শুধু তাই নয়, এরপর দশৎ এবং ঝোব নামে আরও দুটি জাহাজও পাকিস্তানকে দেবে চীন- এমন খবর বেরিয়েছে।

আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...