চিকিৎসকের সহকারী সার্জন রোবট!

জার্মানির লাইপসিশ বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে মস্তিষ্কের এক অস্ত্রোপচার

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ চিকিৎসকের সহকারী থাকেন তারই জুনিয়র চিকিৎসকরা, সেটি আমাদের সকলের জানা। তবে এবার চিকিৎসকের সহকারী সার্জন হলেন রোবট!

চিকিৎসাবিদ্যার উন্নতির কারণে মস্তিষ্কে অস্ত্রোপচারও আগের তুলনায় অনেক সহজ হয়ে উঠছে। তবে জটিল অপারেশন এখনও বড় চ্যালেঞ্জ। ভবিষ্যতে সার্জনকে সহায়তা করতে ডিজিটাল প্রযুক্তির ব্যাপক উন্নতির প্রক্রিয়াও অব্যাহত রয়েছে।

সংবাদ মাধ্যমের খবরে জানা যায়, জার্মানির লাইপসিশ বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে মস্তিষ্কের এক অস্ত্রোপচার চলছে। বেশ জটিল অস্ত্রোপচার এটি। প্রায় ৪ ঘণ্টা সময় লাগবে। সার্জন ইয়ুর্গেন মাইক্সেনব্যার্গার বলেন, ‘রোগীর মস্তিষ্কের সারফেসের ঠিক নীচে পস্টেরিয়ার লোবের পিছন দিকে একটি টিউমার ধরা পড়েছে।’ তিনি হাত দিয়েই কাজ সারছেন। তবে সেই কাজে তাকে সাহায্য করছে রোবট। সার্জনকে মস্তিষ্কের ভিতরের অংশ এবং রোগীর অবস্থা সম্পর্কে তথ্য দিয়ে চলেছে রোবটটি। অবশেষে অপারেশন সফল হওয়ায় টিমের সবাই স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেললেন। সার্জন এই কারণেও খুশি যে অপারেশনের সময় রোবটকে কিছুই বলতে হয়নি। সমস্ত দরকারি তথ্য নিজেই সংগ্রহ করে চিকিৎসককে সরবরাহ করেছে।

রোবট যে কেবল তথ্য দিয়েই সাহায্য করছে তা নয়, বর্তমান বিশ্বের বিভিন্ন আধুনিক হাসপাতালে এই যন্ত্র নিজেই জটিল কঠিন অস্ত্রোপচারের কাজ সফলভাবে করে ফেলা হচ্ছে। জার্মানির হামবুর্গের মার্টিনি ক্লিনিকে সারা দুনিয়ার মধ্যে সবচেয়ে বেশি প্রোস্টেট অপারেশন করে। সেই অপারেশন যারা করেন, তাদের মধ্যে নামকরা শল্যচিকিৎসক ছাড়াও একটি রোবটও রয়েছে। ওই রোবটটিও প্রোস্টেট অপারেশনে দারুণ হাত পাকিয়েছে।

গবেষকরা মনে করছেন, ভবিষ্যতে ইন্টেলিজেন্ট সফটওয়্যার সার্জনকে সহায়তা করবে, তাদের কাজ আরও অনেক সহজ করে তুলবে। তাছাড়া মানুষের থেকে তাদের উপর আরও বেশি নির্ভর করা যাবে।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...