মিয়ানমারের রাখাইনে গণহত্যায় ৭ সেনার ১০ বছরের কারাদণ্ড

গত বছরের সেপ্টেম্বরে সংখ্যালঘু রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর ১০ জনকে বিনা কারণে হত্যা করার অপরাধে

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ মিয়ানমারের রাখাইনে গণহত্যায় দেশটির ৭ সেনার ১০ বছরের কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত। মিয়ানমারের সেনাবাহিনী বৃহস্পতিবার এক বিবৃতিতে এই তথ্য দিয়েছে।

মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে গত বছরের সেপ্টেম্বরে সংখ্যালঘু রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর ১০ জনকে বিনা কারণে হত্যা করার অপরাধের সঙ্গে জড়িত থাকার দায়ে দেশটির ৭ সেনা সদস্যকে ১০ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

সেনাবাহিনীর ওই বিবৃতিতে আরও বলা হয়, রাখাইনের ওই গ্রামটিতে চালানো গণহত্যায় সেনা সদস্যদের সঙ্গে পুলিশ ও স্থানীয় যেসব সশস্ত্র সংগঠনের লোকজন জড়িত তাদেরকেও বিচারের আওতায় আনা হবে।

বিবৃতির মাধ্যমে দেশটির সেনাবাহিনী প্রথমবারের মতো স্বীকার করে নিলো যে রোহিঙ্গাদের ওপর চালানো গণহত্যায় তারা জড়িত।

গত বছর সেনাচৌকিতে হামলার অভিযোগ এনে মিয়ানমারের রাখাইন প্রদেশে ভয়াবহ সেনা অভিযান শুরু করে মিয়ানমার সরকার। পুলিশ ও স্থানীয় সন্ত্রাসীগোষ্ঠীও এই অভিযানে যোগ দিয়ে নিরপরাধ মুসলিম রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর ওপর বর্বরোচিত হামলা করে। সরকারি মদদে নির্বিচারে রোহিঙ্গাদের ওপর শুরু হয় অবর্বণীয় হত্যা, ধর্ষণ ও গুমের মতো ঘটনা। জাতিসংঘ ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র পূর্ব হতেই মিয়ানমারের ওই অভিযানকে জাতিগত নির্মূল অভিযান হিসেবে আখ্যায়িত করে আসছিল। এবার এই সাজার মাধ্যমে তার কিছুটা হলেও সত্যতা প্রমাণ হলো।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...