এয়ারপোর্টে এবার লাগেজ স্ক্রিন করতে ব্যবহৃত হচ্ছে সিটি স্ক্যানার!

যাত্রীদের লাগেজ স্ক্যান করার জন্য নতুন ব্যাগ-স্ক্যানিং মেশিন ব্যবহার করতে যাচ্ছে

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ জন এফ. কেনেডি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর যুক্তরাষ্ট্রের সবচেয়ে ব্যস্ততম বিমানবন্দর। এবার নিরাপত্তা ব্যবস্থা আরো উন্নত করার জন্য এই বিমানবন্দরে যাত্রীদের লাগেজ স্ক্রিন করতে ব্যবহৃত হচ্ছে সিটি স্ক্যানার।

আমেরিকান এয়ারলাইন্স ঘোষণা করেছে যে, তারা নিউইয়র্কের জন এফ কেনেডি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে যাত্রীদের লাগেজ স্ক্যান করার জন্য নতুন ব্যাগ-স্ক্যানিং মেশিন ব্যবহার করতে যাচ্ছে যা CT স্ক্যানারের মতো একই প্রযুক্তির ব্যবহার করে। এই যন্ত্রটি একটি ব্যাগের অভ্যন্তরীণ সামগ্রীগুলোর একটি 3D চিত্র প্রদান করে। কর্তৃপক্ষ তথ্য অনুযায়ী চলতি জুলাই মাসের শেষের দিকে এই প্রযুক্তি কার্যকরী হতে পারে।

এই নতুন স্ক্যানার মেশিনগুলো এয়ারপোর্টের 8 নিরাপত্তা চেকপয়েন্ট টার্মিনালে ব্যবহৃত হবে। মেশিনটি একটি ব্যাগের ৩৬০ ডিগ্রী রোটেট সম্পন্ন ছবি তুলতে পারবে। আমেরিকান এয়ারলাইন্স বলেছে, বিস্ফোরক এবং অন্যান্য নিষিদ্ধ আইটেম সন্যাক্ত করতে এই মেশিনের সাথে আরো উন্নত প্রযুক্তি সংযুক্ত করা যেতে পারে।

টিএসএ ব্যবস্থাপক ডেভিড পেকক্স বলেছেন, এই মেশিনটি ব্যাগের মধ্যে থাকা তরল, জেল, অ্যারোসল, এবং ল্যাপটপকে অ্যালাও করবে। আর যাত্রীদের তাদের ব্যাগ থেকে কোন কিছু বের করে রাখতেও হবে না। এক্ষেত্রে বিমানবন্দরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা আরো উন্নত হবে এবং দ্রুত কাজ কাজ সম্পাদন করতে পারবে। টিএসএ এর তথ্য মতে বছরের শেষ নাগাদ আরো ১৫টি সিটি স্ক্যানার মেশিন বিমানবন্দরে যুক্ত করা হবে। এবং পরিকল্পনা রয়েছে আগামী ২০১৯ সালে ২৪০টি এই স্ক্যানার মেশিন ক্রয় করা হবে যার প্রতিটির মূল্য ৩ লক্ষ ইউএস ডলার। এছাড়া ফোনিক্স স্কাই হারবর আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরেও এই মেশিন পরিক্ষামূলকভাবে টেস্ট করা হয়েছে।

Advertisements
Loading...