The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

‘সোভিয়েত বাহিনীর পরিণতি ভোগ করবে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র’

মার্কিন সেনারা ইতিমধ্যে ‘অপমানকর’ পরিস্থিতির মধ্যে পড়েছে। তারা তাদের শীতল যুদ্ধের সময়কার প্রতিদ্বন্দ্বীর অভিজ্ঞতা হতে ‘উচিত শিক্ষা’ও পেতে পারে

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ যুদ্ধ-বিধ্বস্ত আফগানিস্তান হতে মার্কিন সেনাদের প্রত্যাহার না করলে তাদেরকেও সাবেক সোভিয়েত ইউনিয়নের পরিণতি ভোগ করতে হবে বলে মনে করছেন তালেবান।

‘সোভিয়েত বাহিনীর পরিণতি ভোগ করবে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র’ 1

তালেবান মুখপাত্র জবিউল্লাহ মুজাহিদ এক বিবৃতিতে বলেন, মার্কিন সেনারা ইতিমধ্যে ‘অপমানকর’ পরিস্থিতির মধ্যে পড়েছে। তারা তাদের শীতল যুদ্ধের সময়কার প্রতিদ্বন্দ্বীর অভিজ্ঞতা হতে ‘উচিত শিক্ষা’ও পেতে পারে।

বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, ‘আফগানিস্তানে সোভিয়েত ইউনিয়নের পরাজয় হতে শিক্ষা নিন এবং আফগান জনগণ ইতিমধ্যে যে সাহসিকতা এবং বীরত্বের পরিচয় দিয়েছে তাকে আর কখনও ঘাটাঘাটি করার দুঃসাহস দেখাবেন না।’

উল্লেখ্য, আফগানিস্তানকে প্রায় এক দশক দখলে রাখার পর অবশেষে ১৯৮৯ সালে আফগানিস্তান হতে সেনা প্রত্যাহার করতে বাধ্য হয়েছিল সাবেক সোভিয়েত ইউনিয়ন। ওই দখলদারিত্বের জের ধরে আফগানিস্তানে গৃহযুদ্ধ দেখা দেয়, যার ফলশ্রুতিতে সেদেশে তালেবানসহ অন্যান্য জঙ্গি গোষ্ঠীর উত্থান ঘটেছিলো।

২০০১ সালের ১১ সেপ্টেম্বর নিউ ইয়র্কের টুইন টাওয়ারে হামলার জন্যও আন্তর্জাতিক সন্ত্রাসী নেটওয়ার্ক আল-কায়েদাকে দায়ী করেছিলো মার্কিন সরকার।

আফগানিস্তানে আশ্রয় নেওয়া আল-কায়েদা নেতা ওসামা বিন লাদেনকে ওয়াশিংটনের হাতে তুলে দেওয়ার জন্য আফগানিস্তানের তৎকালীন তালেবান সরকারের প্রতি আহ্বান জানায় আমেরিকা। তবে তালেবান সরকার তাতে সাড়া না দিলে ২০০১ সালের শেষের দিকে আফগানিস্তানে আগ্রাসন চালিয়ে আফগানিস্তান দখল করে নেয় মার্কিন বাহিনী। সেই দখলদারিত্ব এখনও বিদ্যমান।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...