The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

redporn sex videos porn movies black cock girl in blue bikini blowjobs in pov and wanks off.

ট্রেনে জন্ম নেওয়ার জন্য ২৫ বছর পর্যন্ত রেলভ্রমণ ফ্রি!

ট্রেনে চড়ে গালওয়ে শহর হতে রাজধানী ডাবলিনে যাচ্ছিলেন একজন গর্ভবতী নারী

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ যাত্রাপথে সন্তান প্রসরে ঘটনা মাঝে মধ্যেই ঘটে থাকে। এবার ট্রেন ভ্রমণের সময় সন্তান প্রসব করলেন এক নারী। এই ঘটনাটি ঘটেছে আয়ারল্যান্ডে। ট্রেনে জন্ম নেওয়ার জন্য ২৫ বছর পর্যন্ত রেলভ্রমণ ফ্রি ঘোষণা করা হয়েছে!

ট্রেনে জন্ম নেওয়ার জন্য ২৫ বছর পর্যন্ত রেলভ্রমণ ফ্রি! 1

সংবাদ মাধ্যমের খবরে জানা যায়, ট্রেনে চড়ে গালওয়ে শহর হতে রাজধানী ডাবলিনে যাচ্ছিলেন একজন গর্ভবতী নারী। পথিমধ্যেই ট্রেনেই এক কন্যা সন্তানের জন্ম দেন তিনি। সে কারণে আইরিশ রেল কর্তৃপক্ষ সদ্যজাত শিশুটিকে পৃথিবীতে স্বাগত জানিয়ে একটা পুরষ্কার ঘোষণা করে। তারা জানিয়েছেন, শিশুটির বয়স ২৫ বছর হওয়া পর্যন্ত সে বিনা ভাড়ায় দেশের যেখানে খুশী সেখানে রেলভ্রমণ করতে পারবেন!

আইরিশ রেল কর্তৃপক্ষের এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, এমনিতেই ৫ বছরের নীচে শিশুরা বিনা ভাড়ায ভ্রমণ করতে পারেন। তবে সদ্যজাত শিশুটিকে তারা আরও ২০ বছর বিনা ভাড়ায় ভ্রমণের সুযোগ করে দিচ্ছেন। সেইসঙ্গে প্রসব পরবর্তী শিশুটির মায়ের চিকিৎসা সংক্রান্ত সব দেখভালও করছে দেশটির রেল কর্তৃপক্ষ।

জানা যায়, ট্রেনে ভ্রমণকালে ওই নারীর যখন প্রসব বেদনা ওঠে তখন সৌভাগ্যবশত ট্রেনেই একজন চিকিৎসক ও দুইজন নার্স যাত্রী উপস্থিত ছিলেন। ওই ট্রেনে অবস্থানরত চিকিৎসক ডা. ডেভিন জানিয়েছেন, তিনি সেই সময় একটা সম্মেলনে যাচ্ছিলেন। হঠাৎ করেই ট্রেন থেমে যাওয়ায় তিনি বেশ অবাক হন। যাত্রীদের কাছে ট্রেন থামার কারণ জেনে তিনি খুব দ্রুত ওই নারীকে সাহায্যের জন্য এগিয়ে যান।

ডা. ডেভিন আরও বলেন, ‘আমি এগিয়ে দেখি ইতিমধ্যে দুইজন নার্স তাকে (গর্ভবতী নারী) সাহায্য শুরু করেছেন এবং আরেকজন নারী অ্যাম্বুলেন্সে খবর দিয়েছেন। আমি সাহায্য করতে চাই শুনে তারা বেশ খুশী হন’।

ডা. ডেভিন জানিয়েছেন, অ্যাম্বুলেন্স পৌঁছানোর আগেই ট্রেনের কামরাতেই শিশুটি ভুমিষ্ঠ হয়। তখন তার কাছে ডেলিভারী করানোর জন্য এক জোড়া প্লাস্টিকের গ্লাভস ছাড়া অন্য কোনও যন্ত্রপাতি ছিল না।

ড. ডেভিন বলেন, ‘শিশুটি ভুমিষ্ঠ হওয়ার পর কয়েক সেকেণ্ড পর্যন্ত বেশ চিন্তা হচ্ছিল আমার। তারপর যখন সে চিৎকার করে কান্নাকাটি শুরু করলো আমরা তখন যেনো হাঁপ ছেড়ে বাঁচলাম’।

জানা যায়, ট্রেনে নবজাতকটি ভুমিষ্ঠ হওয়ার কিছুক্ষণ পরই স্থানীয় হাসপাতাল হতে অ্যাম্বুলেন্স চলে আসে। তারপর মা ও নবজাত শিশুকে দ্রুত হাসপাতালে নেওয়া হয়।

Loading...
sex không che
mms desi
wwwxxx