The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

দাঁত সাদা করে যেসব খাবার

আমরা প্রতিনিয়ত বিভিন্ন ধরনের খাবার খেয়ে থাকি। এমন নানাবিধ খাবার আছে যা আমাদের দাঁতের সাদা রঙ নষ্ট করে দেয়

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ একটি সুন্দর হাসি আপনাকে সবার কাছে উপস্থাপন করবে স্বয়ংসম্পূর্ণভাবে। তাই এই সুন্দর হাসির জন্য আমাদের প্রয়োজন সুন্দর ঝকঝকে সাদা দাঁত। দাঁত সাদা করে যেসব খাবার সে সম্পর্কে আজ জেনে নিন।

দাঁত সাদা করে যেসব খাবার 1

আমরা প্রতিনিয়ত বিভিন্ন ধরনের খাবার খেয়ে থাকি। এমন নানাবিধ খাবার আছে যা আমাদের দাঁতের সাদা রঙ নষ্ট করে দেয়। যার কারনে আমাদের দাঁত হয়ে ওঠে হলদে, লাল অথবা কালচে। দাঁতের এই অবস্থার কারনে আমরা কারো সামনে মন খুলে হাঁসতে পারিনা এমনকি কথা বলতেও লজ্জাবোধ করে থাকি। তবে আমদের দাঁতের এই রঙ আর উজ্জ্বলতা ধরে রাখার দায়িত্ব আমাদের নিজের। একটু সচেতন হলেই আমরা আমাদের দাঁতের উজ্জলতাকে আরো ফুটিয়ে তুলতে পারি প্রতিনিয়ত। যেসকল খাবার আমাদের দাঁতের উজ্জ্বলতা নষ্ট করে ফেলে আমরা যদি ওই সকল খাবার পরিত্যগ করি, আর যে সকল খাবার আমাদের দাঁতকে আরো সাদা করে তুলবে তাদের গ্রহণ করার মাধ্যমে আমরা খুব সহজেই পেতে পারি সুন্দর উজ্জ্বল ঝকঝকে সাদা দাঁত।

আসুন জেনে নেই দাঁতের রঙ ও উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি করে এমন কিছু খাবারের তালিকা ও বিস্তারিত কিছু কথা-

আপেল

আপেল দাঁতের জন্য খুবি উপকারি একটি ফল। আপেল দাঁতের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধির পাশাপাশি দাঁতের মাড়িকে করে তলে মজবুত ও স্থায়ী। আপেল দাঁতের গোঁড়াকে শক্ত করে তোলে। আপেল খাওয়ার সময় যে পরিমাণ লালানিঃসরণ হয় তাতে মুখের মধ্যকার অনেক ব্যাকটিরিয়া ধ্বংস হয়। আপেল কামড় দিয়ে আওয়াজ করে খাওয়া কারো জন্য বিরক্তির কারণ হলেও দাঁতের জন্য কিন্তু দারুণ উপকারী।

কমলালেবু

কমলালেবু একটি অ্যাসিড জাতীয় ফল। এই অ্যাসিড দাঁতের সকল দাগ পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন করে তোলে। এই ফল থেকে পাওয়া অ্যাসিড দাঁতের উজ্জলতাকেও ধরে রাখতে সাহায্য করে থাকে।

তবে অধিক পরিমাণে এই অ্যাসিড গ্রহন করলে দাঁতের উপরিভাগে ক্ষত সৃষ্টি হতে পারে তাই ডাক্তারের পরামর্শ মোতাবেক এই ফল পরিমাণমত গ্রহন করা উচিত।

গাজর

গাজর দাঁতের জন্য খুবই উপকারি একটি খাদ্য। এটি দাঁতের ময়লা দুর করে থাকে ও দাঁতের মাড়িকে করে তোলে শক্ত ও মজবুত।

আপেলের মতই কাঁচা গাজর দাঁতের জন্য ভীষণ উপকারী। গাজর খেলে দাঁতের ফাঁকে ঢুকে থাকা খাদ্য কণা বেরিয়ে আসে।এছাড়া তা দাঁত ও মাড়ির স্বাস্থ্যের জন্য একটি সুপেয় খাদ্য।

পেয়াজ

পেঁয়াজ দাঁতের জন্য ভীষণ উপকারী। এরমধ্যে আছে অ্যান্টি-মাইক্রোবিয়াল এবং অ্যান্টিসেপটিক। আর একটি বিষয় হলো পেঁয়াজ স্বচ্ছ। তাই এটি খেলে দাঁতে কোন দাগ হয়না। পেয়াজ খেলে মুখ থেকে পেঁয়াজের একটি গন্ধ আসে যার কারণে অনেকেই কাচা পেঁয়াজ খেতে চায়না তবে কাঁচা পেঁয়াজ আপনার দাঁতকে করে তুলতে পারে দাগমুক্ত আর ঝকঝকে সাদা এবং সুন্দর।

পনির

পনির একটি স্বাস্থ্যকর খাবার। শক্ত পনিরে প্রচুর পরিমানে ক্যালসিয়াম রয়েছে যা আমাদের দাঁতের জন্য অনেক উপকারি। ক্যালসিয়ামের অভাবে আমাদের দাঁতের নানান রোগ ও সমস্যা দেখা দেয়। দাঁতের ক্ষয় পূরণের ক্ষেত্রে এই ক্যালসিয়াম বিশেষ ভুমিকা পালন করে থাকে। তবে আমাদের সকলের সাদা পনির গ্রহন করা উচিত। সাদা পনির গ্রহণ করলে দাঁতে কোন ধরনের দাগ পরে না।

পানি

বেশি পরিমাণ পানি পান করলে আপনার মুখ পরিষ্কার থাকবে এবং মুখের দুর্গন্ধ থেকে অতিব সহজেই মিলবে পরিত্রাণ।তবে রেড ওয়াইন বা ব্ল্যাক কফি কিন্তু আম্দের দাঁতে দাগ তৈরি করতে পারে। তাই এগুলো খাবার পর প্রতিবার কমপক্ষে একবার আমাদের পানি পান করতে হবে। আর সোডামেশানো পানি খুব বেশি না খাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন পরামর্শকরা, কারণ এতে এনামেল ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এনামেল দাঁতের একটি খুবি জরুরি ও অবিচ্ছেদ্য অংশ।

এছাড়া নানা ধরনের ক্যামিকেল যুক্ত খাবার বর্জন করা, বেশি করে মচমচে খাবার খাওয়া, বেশি করে শক্ত ফল চিবিয়ে খাওয়া, চুইংগাম চাবানো এবং নিয়মিত সঠিক নিয়মে ব্রাশ করলে আমরা আমাদের দাঁত খুব সহজেই সাদা ঝকঝকে ও মজবুত করে তুলতে পারি।

Loading...