The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

ঐতিহাসিক ঢাকার নর্থব্রুক হল বা লালকুঠি

রাজধানী ঢাকার অন্যতম প্রাচীন এবং সৌন্দর্যময় স্থাপত্যিক একটি নিদর্শন

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ শুভ সকাল। রবিবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৯ খৃস্টাব্দ, ২ পৌষ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৭ রবিউস সানি ১৪৪১ হিজরি। দি ঢাকা টাইমস্ -এর পক্ষ থেকে সকলকে শুভ সকাল। আজ যাদের জন্মদিন তাদের সকলকে জানাই জন্মদিনের শুভেচ্ছা- শুভ জন্মদিন।

ঐতিহাসিক ঢাকার নর্থব্রুক হল বা লালকুঠি 1

নর্থব্রুক হল যা বর্তমানে স্থানীয়ভাবে লালকুঠি নামে পরিচিত এটি বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকার অন্যতম প্রাচীন এবং সৌন্দর্যময় স্থাপত্যিক একটি নিদর্শন যেটি বুড়িগঙ্গা নদীর তীরে ওয়াইজ ঘাটে অবস্থিত।

১৮৭৪ সালে ভারতের গভর্নর জেনারেল জর্জ ব্যরিং নর্থব্রুক ঢাকা সফরে এসেছিলেন। তার এ সফরকে স্মরণীয় করে রাখার জন্যই এই ভবনটি টাউন হল হিসেবে নির্মাণ করা হয়েছিলো। এখানে একটি নাট্যলয়ও রয়েছে। তৎকালিন রাজধানী ঢাকার স্থানীয় ধনাঢ্য ব্যক্তিরা গভর্নর জেনারেল নর্থব্রুকের সম্মানে এই ভবনের নাম দেন নর্থব্রুক হল।

জানা যায়, ১৯২৬ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি এখানেই বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরকে ঢাকা পৌরসভা সংবর্ধনা দেয়। বর্তমানে ভবনটির দায়িত্ব রয়েছে ঢাকা সিটি কর্পোরেশনের অধিনে। জরাজীর্ণ হওয়ায় এটি মিলনায়তন হিসেবে বর্তমানে ব্যবহৃত হচ্ছে না। এই ভবনটি সংলগ্ন সড়কটি নর্থব্রুক হল রোড নামেই পরিচিত। মূল ভবনের পশ্চাৎভাগে একটি গ্রন্থালয়ও রয়েছে।

ছবি ও তথ্য: https://bn.wikipedia.org এর সৌজন্যে প্রাপ্ত।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...