The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

এলো নোবেলের নতুন গান ‘অভিনয়’ [ভিডিও]

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ অনেক দিন চুপচাপ থাকার পর এবার গান নিয়ে ফিরলেন ভারতীয় রিয়্যালিটি শো থেকে ওঠে আসা গায়ক মাইনুল আহসান নোবেল। তার নতুন গান-ভিডিও ‘অভিনয়’ বর্তমানে ইউটিউবে।

এলো নোবেলের নতুন গান ‘অভিনয়’ [ভিডিও] 1

নোবেলের …কি আগুন জ্বলছে বুকে- জানেনা কেও তো জানেনা…. এই গানটির কথা লিখেছেন আহমেদ রিজভী, সুর ও সংগীত করেছেন আহমেদ হুমায়ূন। সম্প্রতি ঢাকার অন্যতম অডিও প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান সাউন্ডটেকের সঙ্গে একগুচ্ছ গান নিয়ে চুক্তিবদ্ধও হয়েছেন নোবেল। যার প্রথম প্রকাশ হলো ‘অভিনয়’। ২৪ ঘণ্টা পার হওয়ার আগেই গানটি পেয়েছে ২ লাখেরও বেশি ভিউ। গান ও ভিডিওটি নির্মাণ করেছেন শাহরিয়ার পলক।

‘অভিনয়’ প্রকাশের আগে নোবেল গত বৃহস্পতিবার সাংবাদিকদের বলেন, “আজকের দিনটি আমার জন্য সত্যিই অনেক বড়। এই প্রথম এতো বড় এবং সঠিক আয়োজনের সঙ্গে আমার একটি মৌলিক গান রিলিজ হতে চলেছে। অতীতের নানা ভুল-ত্রুটির জন্য আমি সত্যিই লজ্জিত। অশেষ কৃতজ্ঞতা জানাই তাদের প্রতি যারা এতো ঝড়ঝাপটার মধ্যেও আমার পাশে ছিলেন। তবে আমি আরও বিশেষভাবে কৃতজ্ঞ তাদের প্রতি যারা খুব কঠোর ভাষায় শাসন করে হলেও আমার ভুল ত্রুটিগুলোকে শুধরে দিয়েছেন।”

এ বছর নিজের ইউটিউব চ্যানেলে ‘তামাশা’ এবং ‘ও শ্রাবণ’ শিরোনামের দুটি গান-ভিডিও প্রকাশ করেন নোবেল।

উল্লেখ্য, কোলকাতার ‘সারেগামাপা’ প্রতিযোগিতা চলাকালে নোবেল সেখানকার ‘ভিঞ্চি দা’ সিনেমায় ‘তোমার মনের ভেতর যাই’ এবং মৌলিক গান ‘আগুন পাখি’তেও কণ্ঠ দেন।

তবে বেশ কিছু বিষয়ে চরম সমালোচনার মুখে নোবেল প্রায় নিশ্চুপ হয়ে যান। তার অনেক ভক্তই মনে করেন, ভুলত্রুটিগুলো শুধরে নিয়মিত গান করা উচিত। কারণ নোবেলের দরাজ কণ্ঠের গান সকলকেই উজ্জীবিত করে থাকে।

দেখুন ভিডিও গানটি

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর

অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...