The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

redporn sex videos porn movies black cock girl in blue bikini blowjobs in pov and wanks off.

মুদ্রাবাজারে ডলারের বিনিময়ে শক্তিশালী হচ্ছে টাকা

দি ঢাকা টাইমস্‌ ডেস্ক ॥ প্রায় একবছর ডলারের বিনিময়ে টাকার মূল্যমান স্থির থাকার পর গত সোমবার থেকে ডলারের বিনিময়ে টাকা শক্তিশালী হতে শুরু করেছে। রপ্তানি আয় বৃদ্ধি এবং রেমিটেন্সের পরিমাণ বৃদ্ধি পাওয়ার ফলে টাকার এই মূল্যমান শক্তিশালী হচ্ছে বলে মনে করেন অর্থনৈতিক বিশেষজ্ঞরা।


forexwb

গত সোমবার আন্তঃব্যাংক এর বরাত দিয়ে জানা যায় যে মুদ্রাবাজারে ডলার ও টাকার বর্তমান বিনিময় হার ৭৭.৬৫ টাকা। কিন্তু গত সোমবারের আগ পর্যন্ত ডলার এবং টাকার বিনিময় হার ছিল ৭৭.৭৫ টাকা। এই হিসেবে ডলারের বিনিময়ে টাকার মূল্যমান বেড়েছে ১০ পয়সা। ব্যাংকগুলোতে ডলারের দাম আরো কম, গত সোমবার সোনালী ব্যাংকে টাকার বিনিময়ে ডলারের মূল্যমান ছিল ৭৭.৩০ পয়সা যা মুদ্রাবাজারের মূল্যমান থেকে আরো ৩৫ পয়সা কম। সে হিসেবে ডলারের বিপরীতে টাকার মূল্যমান বেড়েছে প্রায় ৪৫ পয়সা।

বাংলাদেশ ঊন্নয়ন গবেষণা সংস্থার মহাপরিচালক ডলারের বিনিময়ে টাকার এই মূল্যমানের বৃদ্ধির কারণ তুলে ধরতে গিয়ে বলেন, “রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠানের রপ্তানি বৃদ্ধি পেয়েছে ফলে বেড়েছে রপ্তানি আয়। অপরদিকে প্রবাসীদের রেমিটেন্স পাঠানোর প্রবাহ গত কয়েক বছর যাবত উত্তরোত্তর বৃদ্ধি পাচ্ছে। এই অবস্থায় বাংলাদেশ ব্যাংক ফ্লোটিং ব্যবস্থার মাধ্যমে মুদ্রাবাজারে স্থিতিশীলতা বজায় রেখেছে। বাংলাদেশ ব্যাংক দিনকে দিন ডলারের বিনিময়ে টাকার মূল্যমানকে ধরে রাখার জন্য বাজার থেকে ডলার কিনেছে। কিন্তু সাম্প্রতিক সময়ে বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ ২০ বিলিয়ন ডলারে পৌছার পর কেন্দ্রীয় ব্যাংক বাজার থেকে ডলার কেনার হার কমিয়ে দেয় বিনিময়ে টাকার মূল্যমান শক্তিশালী হয়”।

bangladesh-remittances

বাংলাদেশ ব্যাংকের তথ্যমতে ২০১৩-১৪ অর্থবছরে প্রথম আটমাসে বাংলাদেশ ব্যাংক বাজার থেকে প্রায় ৩৫০ কোটি ডলার কিনে নেয়। ২০১২-১৩ অর্থবছরে এই হার ছিল ৪৭৯ কোটি ডলার। ২০১২ সালের প্রথমদিকে টাকার বিনিময়ে ডলারের মূল্য বেড়ে দাঁড়ায় ৮৫ টাকা। বাংলাদেশ ব্যাংক আরো জানায় ২০০৩ সালে বাংলাদেশে চালু হয় ভাসমান মুদ্রা ব্যবস্থা বা ফ্লোটিং সিস্টেম। এই ব্যবস্থার মাধ্যমে বৈদেশিক মুদ্রার বিনিময় ব্যবস্থা ছেড়ে দেওয়া হয় মুদ্রাবাজারের উপর। এর আগ পর্যন্ত কেন্দ্রীয় ব্যাংক টাকা ও ডলারের বিনিময় হার নির্ধারণ করে দিত।

বর্তমান বিনিময়ের হারের উপর ডলারের দাম কমে গেলে তা রপ্তানি আয়ের উপর তেমন প্রভাব ফেলবে না। তবে বেশি কমে গেলে প্রভাব পড়বে। কিন্তু এতে লাভজনক দিকও রয়েছে। এতে করে আমদানি পণ্যের দাম কম পড়ে। বর্তমান ডলারের রিজার্ভের ক্ষেত্রে বাংলাদেশ এবং ভারত প্রায় একই। গত এপ্রিল মাসে ভারতের কেন্দ্রীয় ব্যাংক স্টেট ব্যাংক অব ইন্ডিয়ার ডলারের রিজার্ভ দাঁড়ায় ২০ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। ডলারের বিপরীতে রুপির মূল্যমানও কমেছে। বর্তমানে ডলার রুপির বিনিময় হার ৫৪.৬০ টাকা। গতবছরের এই সময়ে ডলার রুপির বিনিময় হার ছিল ৬৮ টাকা। বাংলাদেশ ব্যাংক সুত্রে জানা যায় এশিয়ান ক্লিয়ারিং ইউনিয়নের বিল পরিশোধের আগ পর্যন্ত বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভ গিয়ে দাঁড়াবে ২০ বিলিয়ন ডলারের উপরে।

রপ্তানি উন্নয়ন ব্যুরোর তথ্যমতে বর্তমান সময়ে রপ্তানি আয় বেড়েছে পূর্বের তুলনায় প্রায় ১৩ শতাংশ। গত মার্চ মাসে রেমিটেন্স আয় পূর্বের সকল রেকর্ড ভঙ্গ করে। শুধু মার্চ মাসে রেমিটেন্স আয় ছিল ১২৮ কোটি ডলার। যা এযাবৎকালের সর্বোচ্চ রেমিটেন্স। এর আগে গত বছরের ডিসেম্বরে এসেছিল ১২১ কোটি ডলার এবং এই বছরের শুরুতে ছিল ১২৬ কোটি মার্কিন ডলার।

Loading...
sex không che
mms desi
wwwxxx