The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

ভোলার রাজু উদ্ভাবন করলেন জ্বালানিবিহীন মোটরসাইকেল!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ ভোলার রাজু এবার উদ্ভাবন করলেন জ্বালানি বিহীন মোটরসাইকেল। কোন ধরনের তেল-গ্যাস ছাড়া ধোঁয়া বিহীন শতভাগ পরিবেশ বান্ধব এই মোটর সাইকেলটি।

Energy Profit Motorcycle

বাঙালি যুবক রাজু এবার জ্বালানি বিহীন মোটর সাইকেল উদ্ভাবন করে তাক লাগিয়ে দিয়েছেন। একেবারে নিজের প্রচেষ্টায় এমন একটি উদ্ভাবনের প্রমাণ করলেন ভোলার এই যুবক রাজু। রাজু উদ্ভাবন করেছেন জ্বালানি বিহীন মোটরসাইকেল। নিজস্ব প্রযুক্তিতে রাজু মোটরসাইকেলটি আবিষ্কার করেন। যা কোন ধরনের তেল-গ্যাস ছাড়া এবং ধোঁয়া বিহীন শতভাগ পরিবেশ বান্ধবভাবে চলাচল করবে। আর এই মোটর সাইকেলটি চালাতে প্রতি ১৫০ কিলোমিটারে খরচ হবে মাত্র ১২ টাকা। দীর্ঘ ২ বছর প্রচেষ্টার পর ব্যাটারি চালিত মোটর সাইকেলটি উদ্ভাবন করেছেন রাজু। ভোলা সদর উপজেলার উকিল পাড়ার মোটর মেকানিক মৃত মীর আনোয়ার হোসেনের ছেলে মীর ইব্রাহিম হোসেন রাজু।

রাজু পড়া-শুনার ফাঁকে ফাঁকে বাবার মোটর গ্যারেজে আসা-যাওয়ার মাধ্যমে আগ্রহ তৈরি হয়। অবশেষে মাধ্যমিকের গন্ডি পার করে যখন ভকেশনালের ছাত্র ঠিক তখন মৃত্যু হয় তার বাবার। গ্যারেজের দায়িত্ব বর্তায় নিজের কাধে। সংসার চালাতে বাধ্য হয়ে কলম ফেলে হাতে তুলে নেন লোহার যন্ত্রপাতি। শুরু হয় কিশোর রাজুর এক জীবন সংগ্রাম। গ্যারেজে কাজ করার ফাকেই শুরু করেন জ্বালানিবিহীন মোটর সাইকেল তৈরির কাজ। একসময় তিনি তার লক্ষ্যেও পৌছান।

রাজু বলেন, ‘২০১২ সাল হতে তেল বিহীন মোটরসাইকেল তৈরির কাজ শুরু করি। একটানা ২ বছর সাধনার পর এটি পুরোপুরিভাবে তৈরি করতে সক্ষম হই। দীর্ঘ গবেষণায় তার প্রায় দেড় লাখ টাকা ব্যয় হয়। তবে বর্তমানে এটি তৈরি করতে ৮৫ হাজার টাকা এবং সময় লাগে মাত্র ১৫ দিন। মোটরসাইকেলটির ইঞ্জিন চালাতে ১২ ভোল্টের ৪টি ব্যাটারি এবং পাওয়ার কন্ট্রোল বক্স ব্যবহার করা হয়েছে। আর ব্যাটারি চার্জ হতে সময় লাগে ৩ ঘন্টার মতো।’

প্লাস্টিক, ব্যাটারি, লোহা এবং অ্যালুমিনিয়াম দিয়ে তৈরি এই মোটর সাইকেলটি বাণিজ্যিক উৎপাদনে কোনো প্রতিষ্ঠান বা সরকার এগিয়ে এলে পরিবেশবান্ধব মোটরসাইকেলটি দেশের জ্বালানি খরচ কমানোর পাশাপাশি বিদেশেও রফতানি করা সম্ভব হবে বলে আশা তিনি প্রকাশ করেছেন। তার এই মোটর সাইকেলটি দেশের যোগাযোগ ব্যবস্থায় এক বিশেষ সাফল্য আনতে পারে বলে তিনি মনে করেন।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...