ইরাকে আইএস ঐতিহ্যবাহী নিদর্শন গুঁড়িয়ে দিচ্ছে!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ ইরাকের প্রাচীন নগর নিমরুদে ধ্বংসাত্মক অভিযান শুরু করেছে জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেট (আইএস)। সেখানকার ঐতিহ্যবাহী নিদর্শন গুঁড়িয়ে দিচ্ছে তারা!

Traditional patterns & Iraq

সংবাদ মাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, গত বৃহস্পতিবার হতে ইরাকের প্রাচীন নগর নিমরুদে ধ্বংসাত্মক অভিযান শুরু করেছে জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেট (আইএস)। ওই নগরের অ্যাসিরীয় সভ্যতার ঐতিহ্যবাহী নিদর্শন সব গুঁড়িয়ে দিতে এই অভিযান শুরু করেছে আইএস।

গতকাল শুক্রবার এএফপির খবরে বলা হয়, জঙ্গী সংগঠন আইএস তাদের সাম্প্রতিক হামলায় ইরাকের ঐতিহাসিক নিদর্শন বেছে নিয়েছে। পর্যটন ও পুরাকীর্তিবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের ফেসবুক পেজে লেখা হয়, আইএস নিমরুদ শহরে ভারি যান ব্যবহার করে অ্যাসিরীয় সভ্যতার নিদর্শন গুঁড়িয়ে দিচ্ছে।

ইরাকের পুরাকীর্তিবিষয়ক এক কর্মকর্তা সংবাদ মাধ্যমকে জানান, বৃহস্পতিবার দুপুরে নামাজের পর হতে এই ধ্বংসযজ্ঞ শুরু হয়। ঘটনাস্থলে কিছু ট্রাক এনে সম্ভবত শৈল্পিক কোনো নিদর্শন সরিয়েও নিয়ে যায়। ইরাকের মসুল শহর হতে ৩০ কিলোমিটার দক্ষিণপূর্বে অবস্থিত নিমরুদ শহরটি দজলা নদীর তীরে খ্রিষ্টপূর্ব ত্রয়োদশ শতাব্দীতে গড়ে ওঠে। এই মসুলই এখন আইএসের প্রধান ঘাঁটি। প্রাচীনকালে ইরাক, তুরস্ক ও সিরিয়ার অংশ নিয়ে বিস্তার ঘটেছিল অ্যাসিরীয় সভ্যতার।

ইরাকের পুরাকীর্তি বিষয়ে স্টোনি ব্রোক বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন প্রত্নতত্ত্ববিদ আবদুলামির হামদানি বলেন, ‘আমার বলতে খুবই খারাপ লাগছে যে সবাই এটাই আশঙ্কা করছে যে, তাদের অর্থাৎ আইএসের পরিকল্পনা একটিই আর তা হলো একাধারে ইরাকের সব ঐতিহাসিক নিদর্শন ধ্বংস করে দেওয়া।’

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...