এক মনভোলানো ফাঁদের নাম কলস গাছ!

দি ঢাকা টাইমস্‌ ডেস্ক ॥ পৃথিবীতে কত রকমের গাছ রয়েছে তা গুণে শেষ করা যাবে না। এমনই এক মনভোলানো ফাঁদের গাছ যার নাম কলস গাছ। উদ্ভিদ এরকম ফাঁদ হতে পারে তা ভাবাও যায় না।

Insects in Pitcher Plant

অদ্ভূত হলেও বাহারি তার দেহ সৌষ্ঠব কলস উদ্ভিদ আসলে মনভোলানো ফাঁদের অপর নাম। এই সৌন্দর্য দিয়ে ভুলিয়েই ছোটখাটো পোকাদের ফাঁদে ফেলতে ওস্তাদ এই উদ্ভিদ।

এই কলস উদ্ভিদের ইংরেজি নাম হলো পিচার প্ল্যান্ট। বাংলায় এটিবে কলস উদ্ভিদ অথবা কলসগাছ নামেও পরিচিত। পাতাগুলো কলসের মতো দেখতে হওয়ায় এটির এমন নামকরণ করা হয়েছে। আসলে কলস এক ধরনের মাংসাশী উদ্ভিদ। প্রায় ৮০ প্রজাতির কলস উদ্ভিদ রয়েছে। বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে এই উদ্ভিদ পাওয়া যায়। যেমন দক্ষিণ আমেরিকা, মাদাগাস্কার, মালয়েশীয়া, শ্রীলংকা, ভারতসহ বিভিন্ন দেশে নানা প্রজাতির কলস উদ্ভিদ রয়েছে। কিন্তু বাংলাদেশে কখনও কলসগাছের কথা শোনা যায়নি।

Pitcher Plant-2

জানা গেছে, বিভিন্ন রকম কলস উদ্ভিদের পাতাগুলো বিভিন্ন রকম হয়ে থাকে। তবে মূল চেহারা বা গঠন একই রকম। সবগুলোই দেখতে ফোলা কলসের মতো। আর ভেতরের অংশটা থাকে একেবারে ফাঁপা। আর পাতার মুখের কাছে এক ধরনের ঢাকনাও থাকে। তবে প্রজাতি ভেদে পাতার রং, আকার, আকৃতি নানা রকম হয়ে থাকে। দৈর্ঘ্যে ২ ইঞ্চি হতে শুরু করে ২ ফুট পর্যন্ত হতে পারে এই কলস উদ্ভিদের পাতা।

কলসের মতো পাতাই হচ্ছে কলসগাছের শিকার করার প্রধান অস্ত্র। এগুলো সাধারণত রঙিন হয়ে থাকে। কলসের সঙ্গে যুক্ত পাতাটি অনেকটা নলের মতো হয়। এই নলের শুরুতেই থাকে প্রবেশমুখ। আর প্রবেশমুখে উৎপন্ন হয় এক ধরনের মধু। নলের শেষ প্রান্ত ফাঁপা এবং পেয়ালার মতো আকৃতির হয়ে থাকে। আর এই অংশেই জমা হয় বৃষ্টির পানি।

সবচেয়ে আশ্চর্যের বিষয় হচ্ছে, এর প্রবেশমুখ সবসময় খোলা থাকে। মধুর লোভে এবং রংচঙে পাতা দেখে আকৃষ্ট হয়ে বিভিন্ন পোকামাকড় পাতার ভেতরে ঢোকে। নলের ভেতরের অংশটি পিচ্ছিল হওয়ায় পোকাগুলো আর উঠতে পারে না। বরং পিছলে আরও নিচে পড়ে যায়। নলের শেষ প্রান্তে অসংখ্য শুঙ্গ থাকে; এগুলো সব পার হয়ে পোকাগুলো অবশেষে পড়ে যায় জমা হওয়া পানির ভেতরে। তারপর সেখান হতে কখনও তারা বের হতে পারে না। এরপর পরিপাকে সাহায্যকারী এক ধরনের রস বেরিয়ে এসে এবং পোকার শরীরের নরম অংশ গলিয়ে ফেলে তা উদ্ভিদের দেহে শোষিত হতে সাহায্য করে। এবং শক্ত অংশগুলো জমা হয় কলসির নিচের অংশে। এভাবেই ফাঁদে ফেলে শিকার ধরে এই আজব ধরনের উদ্ভিদ কলস। এই কলস উদ্ভিদ ছোট ছোট পোকামাকড় এমনকি ইঁদুর ও ব্যাঙও শিকার করে সুযোগ বুঝে। মোট কথা এর ফাঁদে যে পা দেয় তার আর রক্ষা থাকে না।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...