বরের বন্ধুদের ঠাট্টার প্রতিবাদ: বিয়ের আসর হতে উঠে গেলো কনে!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ বরের বন্ধুদের ঠাট্টার প্রতিবাদ হিসেবে বিয়ের আসর হতে উঠে গেলো কনে! ঘটনাটি ঘটিয়েছে ভারতের উত্তরপ্রদেশের গাজিয়াবাদের এক তরুণী।

Bride Action reportedly

অঙ্কে কাঁচা হওয়ায় এক পাত্রকে পরিত্যাগ করে সম্প্রতি বিয়ের পিঁড়ি ছেড়ে চলে এসেছিল ভারতের উত্তরপ্রদেশের এক পাত্রী। এবার গাজিয়াবাদের এক তরুণী বিয়ের আসর ছেড়ে চলে গেলেন আত্মসম্মানে আঘাত লাগার কারণে। ঘটনাটি ঘটেছে গত শুক্রবার রাতে।

সংবাদ মাধ্যমের খবরে বলা হয়, মালাবদলের সময় বরের বন্ধুরা বরকে কাঁধে উঠিয়ে অনেক উঁচুতে তুলে দেন। মালা দেওয়ার জন্য কনের পক্ষে অত উঁচুতে ওঠা সম্ভব হয়নি। তারপরও ওই তরুণী বার তিনেক চেষ্টা করেছিলেন। এভাবে হেনস্তার এক পর্যায়ে বিয়ে করার কোনও দরকার নেই- একথা সাফ জানিয়ে দিয়ে ওই তরুণী বেরিয়ে যান বিয়ের মণ্ডপ ছেড়ে। ঠাট্টা করতে গিয়ে বিয়ে ভেঙে যাবে তা কেও ভাবতেও পারেননি। এরপর বর ও তার বন্ধুদের বহু অনুনয়েও মন গলেনি কনের।

দীর্ঘদিন ধরে প্রেমের পর বিয়ে করার মনস্ত করেছিলেন উত্তরপ্রদেশের গাজিয়াবাদের ওই তরুণী ও তার প্রেমিক। দু’জনেই পুণের একটি বহুজাতিক সংস্থার কর্মী। বিয়ের দিন নাচ-গান-হুল্লোড়ে জমে উঠেছিল বিয়েবাড়ি। কিন্তু বিয়ে ভাঙ্গার কারণে এলাকায় হৈ হৈ রব বয়ে যায়।

এই ঘটনার পর ক্ষমা চাওয়া এবং বোঝানোর পালা চলে দফায় দফায়। কিন্তু ওই তরুণীর মান ভাঙাতে পুরোপুরি ব্যর্থ হন সবাই। মেয়ের আত্মসম্মান রক্ষার্থে কনেপক্ষ শেষতক বরযাত্রীদের মালাবদল নিয়ে অসভ্যতার অভিযোগ জানায় পুলিশকে। বিয়ে বাতিল করে তাদের অপমান করা হয়েছে- এমন পাল্টা অভিযোগ তোলে বরপক্ষও। শেষপর্যন্ত অবশ্য বরকেই ৫ লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণ দিতে হয়েছে।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...