‘সৌদি ইমামের সঙ্গে সাক্ষাৎ জিব্রাইলের (আ.)’!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ সৌদি আরবের এক ইমাম দাবি করে বলেছেন, ফেরেশতা জিব্রাইলসহ (আ.) এক দল ফেরেশতার সঙ্গে তার সাক্ষাৎ হয়েছে, তিনি তাদের সঙ্গে নামাজ পড়েছেন। আছির প্রদেশের খামিশ মুশায়াত শহরের আহমেদ আল হাওয়াশি নামে প্রধান ইমাম এমন দাবি করেছেন।

Gibraiel met with Saudi Imam

তিনি দাবি করেছেন যে, রমজানে জিব্রাইল ও কয়েকজন ফেরেশতা মসজিদে তার ইমামমিতে তারাবি নামাজ আদায় করেছেন।

ওই ইমাম আরও বলেছেন, নামাজ শেষে তিনি ফেরেশতাদের আসসালামু আলাইকুম বলে সম্ভাষণ করেন এবং হাতের সঙ্গে মুসাফাহাও (করমর্দন) করেন।

এদিকে এই খবর সোস্যাল মিডিয়ার ছড়িয়ে পড়ার পর টনক নড়েছে সেখানকার সর্বোচ্চ প্রশাসনের। আছির রাজ্যের আমির প্রিন্স ফয়সাল বিন খালিদ জ্যেষ্ঠ আলেমদের নিয়ে একটি কমিটি করেছেন এবং ওই ইমামের বিষয়ে তদন্ত করার নির্দেশ দিয়েছেন।

এরপর সরকারের পক্ষ হতে এক বিবৃতিতে জানানো হয়, লাইলাতুল কদর শেষ রমজানের কোনো এক বেজোড় রাতে পড়ে। ওই ইমামের দাবি অনুযায়ী সেই মহিমান্বিত রাত্রি ২৯ রমজানেই পড়ে এমন কোনো বাধ্যবাধকতা নেই।

বিবৃতিতে আরও বলা হয়, কমিটি শেষ পর্যন্ত ইমাম আল হাওয়াশিকে বিষয়টি বুঝাতে সক্ষম হয়েছেন। তিনি অঙ্গীকার করেছেন, ভবিষ্যতে এমন কোনো বক্তব্যের পুনরাবৃত্তি তিনি করবেন না। ওই ইমামের প্রত্যাহার সম্পর্কেও বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়েছে।

এই ঘটনার পর আল হাওয়াশি জোর দিয়ে বলেছেন, ফেরেশতাদের সঙ্গে সাক্ষাতের বিষয়টি সঠিক। তার সঙ্গে জিব্রাইল ও আরও কয়েকজন ফেরেশতার সাক্ষাৎ হয়েছে। তিনি তাদের সঙ্গে মুসাফাহাও করেছেন। ইসলামে ফেরেশতাদের সঙ্গে সাক্ষাতের অনুমতি রয়েছে।
প্রমাণ হিসেবে তিনি উল্লেখ করেন যে, রাসুলের (সা.) সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে আসা জিব্রাইলকে তার সহচররা (সাহাবী) হিসেবে সম্ভাষণ জানাতেন।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...