পাখির মতো দেখতে এক বিমানবন্দরের গল্প

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ তুর্কেমেনিস্থানের রাজধানী অ্যাসগাবাটে উদ্বোধন হয়েছে এক নতুন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর। এটি দেখতে ঠিক ডানা মেলা বাজপাখির মতোই!

bird-airport

সংবাদ মাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, দেশটির জাতীয় বিমান সংস্থার প্রতীকের সঙ্গে মিল রেখেই মূলত এই ডিজাইনটি করা হয়েছে।

নতুন পাঁচতলা এই এয়ারপোর্ট ভবনটি তৈরিতে দেশটির খরচ হয়েছে প্রায় আড়াই শো কোটি ডলার।

বলা হয়েছে যে, প্রতিঘণ্টায় ১৬০০র বেশি যাত্রীর আসা-যাওয়া প্রক্রিয়া সম্পন্ন করার মতো ক্ষমতা রয়েছে এই এয়ারপোর্টের। তবে দেশটির স্বৈর শাসন আর বিপুল প্রাকৃতিক শক্তির মজুদের জন্য বিখ্যাত দেশটিতে খুব কম সংখ্যক বিদেশীই এখানে বেড়াতে আসতে পারেন।

দেশটির সরকারি হিসেব মতে, ২০১৫ সালে ১ লাখ ৫ হাজার বিদেশী পর্যটক তুর্কেমেনিস্থান ভ্রমণ করেছেন।

তুর্কেমেনিস্থানে ভিসা পাওয়াও বেশ কঠিন একটি ব্যাপার। তবে দেশটির প্রেসিডেন্ট গুরবাঙ্গুলি বার্ডিমুখামেদভ নিজের দেশের ট্রানজিট দেশ হবার খুব সম্ভাবনা রয়েছে বলে দাবি করেন।

খবরে জানা যায়, বিভিন্ন শৈল্পিক স্থাপনা ও ভবনের জন্য খ্যাতি রয়েছে অ্যাসগাবাটের। এই শহরে রয়েছে একটি পাবলিশিং হাউজ, যার আকৃতি একটি খোলা বই-এর মতো। এটি দেখতে আসেন পর্যটকরা। তাছাড়াও এই শহরে বর্তমান প্রেসিডেন্ট ও তার পূর্বসূরীর বিশাল আকৃতির স্বর্ণ মূর্তিও রয়েছে। যেগুলো পর্যটকদের আকৃষ্ট করে। তবে ভিসা পাওয়ার প্রক্রিয়া সহজতর হলে এই শহরটি হতো পর্যটকদের জন্য একটি আকর্ষণীয় স্থান।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...