ফেসবুকে তথ্য সুরক্ষিত রাখার পদ্ধতি জেনে নিন

ব্যবহারকারীরা নিজেদের ফেসবুকের সেটিংসে এমন কিছু পরিবর্তন আনতে পারেন, যাতে তথ্য সুরক্ষিতভাবে থাকবে

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ আমরা অনেকেই ফেসবুক ব্যবহার করলেও তথ্য সুরক্ষিত রাখার বিষয়টি আমাদের অজানা। তাই আজ ফেসবুকে তথ্য সুরক্ষিত রাখার পদ্ধতি জেনে নিন।

আমরা এখন শুধু ব্যক্তিগত কাজই নয়, অফিসিয়াল নানা প্রয়োজনেও ফেসবুক ব্যবহার করে থাকি। কিন্তু ফেসবুকে তথ্য সংরক্ষিত রাখার বিষয়টি তখন আরও বেশি সামনে চলে আসে। কারণ অফিসিয়াল তথ্য ফাঁসের আতঙ্কে থাকতে হয়। সম্প্রতি ক্যামব্রিজ এনালিটিকা বিতর্কে নিজেদের তথ্যের নিরাপত্তা নিয়ে ঘোর অনিশ্চয়তার মুখে পড়ে কোটি কোটি ফেসবুক ব্যবহারকারী। ধোঁয়াশা কাটাতে এবার ফেসবুকের পক্ষ হতে জানানো হয়েছে, ব্যবহারকারীদের তথ্য নিরাপদ রাখতে নতুন ফিচার আনছে চলেছে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ।

ব্যবহারকারীরা নিজেদের ফেসবুকের সেটিংসে এমন কিছু পরিবর্তন আনতে পারেন, যাতে তথ্য সুরক্ষিতভাবে থাকবে। যদিও হ্যাকারদের দৌরাত্ম্যে সুরক্ষিত থাকার উপায় খুবই কম। তারপরও ফেসবুক সেটিংসে কোনো পরিবর্তন করলে তথ্য সুরক্ষিত থাকবে তা জেনে রাখা একান্ত প্রয়োজন।

ক্যামব্রিজ এনালিটিকা কেলেঙ্কারি ফাঁস হয়ে যাওয়ার পর হতে তথ্য চুরি যাওয়ার আতঙ্কে বহু মানুষ তাদের ফেসবুক অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দিয়েছেন। তবে অ্যাকাউন্ট বন্ধ কোনও স্থায়ী সমাধান নয়। পরে আবারও ফেসবুকে ফিরলে একই রকম সমস্যার মুখোমুখি হতে পারেন সেই ব্যক্তি। সমস্যার স্থায়ী সমাধানে ফেসবুক এপিআই (API)-এর সুরক্ষাবিধিতে রদবদল করার পরামর্শ দিয়েছে এই সংস্থাটি তার গ্রাহকদের।

এক খবরে জানা গেছে, ফেসবুক এপিআইয়ে রয়েছে ফার্মভিল, টুইটার ও ইনস্টাগ্রামের মতো অ্যাপ। তার পূর্বে অবশ্যই মনে রাখতে হবে যে, আপনি যদি সব এপিআই নিষ্ক্রিয় করে দেন, সেক্ষেত্রে আর এই অ্যাপগুলো ফেসবুকে লগ ইন করেও ব্যবহার করতে পারবেন না আপনি।

কিভাবে করবেন এই কাজটি

অ্যাকাউন্ট সুরক্ষিত রাখতে হলে ফেসবুকে লগ ইন করে অ্যাপ সেটিংস অপশন বেছে নিন। এরপর অ্যাপস, ওয়েবসাইট অ্যান্ড প্লাগইনস অপশন হতে আপনি এডিট অপশনে ক্লিক করুন। সেখানে ‘অ্যাপস আদার ইউজ’ অপশন হতে এডিট বাটনে ক্লিক করতে হবে। এবার সেখান থেকে আপনি যে অ্যাপ আপনার তথ্য জানুক, এটা চান না, সেই অ্যাপগুলো আনচেক করে দিতে পারেন।

উল্লেখ্য, ফেসবুক ইউজারদেরকে না জানিয়ে লাখ লাখ গ্রাহকের তথ্য সংগ্রহ করেছিল রাজনৈতিক পরামর্শক প্রতিষ্ঠান ক্যামব্রিজ এনালিটিকা। পরে সেসব তথ্য মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের নির্বাচনী প্রচারে ব্যবহার করা হয়েছিলো। এই তথ্য ফাঁস হওয়ার পর তুমুল আলোড়ন সৃষ্টি হয়। পরে গত মঙ্গলবার ক্যামব্রিজ এনালিটিকার প্রধান নির্বাহীকে বরখাস্তও করা হয়। তারপর ভুল স্বীকার করে ফেসবুক প্রতিষ্ঠাতা মার্ক জুকারবার্গ সবকিছুর জন্য ক্ষমা চেয়েছেন।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...