The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

শেষ ইচ্ছাপূরণে গাড়িসহ কবর দেওয়া হলো এক ব্যক্তিকে!

জীবিত অবস্থায় তিনি গাড়িকে খুব ভালো বাসতেন। জীবিত থাকা অবস্থাতেই তার গাড়িতে একটু ঘষা লাগলেই তেড়ে আসতেন

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ পৃথিবীতে কতো প্রকৃতির মানুষ বসবাস করে তা গুণে শেষ করা যাবে না। এইসব মানুষের ইচ্ছে বা স্বাদও ভিন্ন ভিন্ন ধরনের। এক ব্যক্তির শেষ ইচ্ছা ছিলো তার প্রিয় গাড়িটিসহ যাতে তাকে কবর দেওয়া হয়। ঠিক তাই করা হলো!

শেষ ইচ্ছাপূরণে গাড়িসহ কবর দেওয়া হলো এক ব্যক্তিকে! 1

দুনিয়াতে ক্ষণস্থায়ি জীবনে মানুষ অনেক কিছুই ভোগ বিলাস কর থাকেন। তারপরও শেষ যাত্রার আগে অর্থাৎ মৃত্যুর আগে শেষ ইচ্ছা বলে একটি শব্দ রয়েছে। সেই শেষ ইচ্ছা পূরণের জন্য যথাসাধ্য চেষ্টা করা হয়। বলা হয়, তার শেষ ইচ্ছা ছিলো এই…কাজ সেটি আমরা পূরণ করতে চাই। এইভাবে মৃত্যুর পূর্বে তার শেষ ইচ্ছা পূরণ করা হয়ে থাকে। এর আগে আমরা এক ব্যক্তিকে তার প্রিয় হোন্ডার উপর বসিয়ে কবর দেওয়ার কথা শুনেছি। এবারও এর ব্যতিক্রম ঘটেনি। এবার তার প্রিয় প্রাইভেট কারসহ কবর দেওয়ার খবর পাওয়া গেছে!

প্রকাশিত এক খবরে জানা যায়, জীবিত অবস্থায় তিনি গাড়িকে খুব ভালো বাসতেন। জীবিত থাকা অবস্থাতেই তার গাড়িতে একটু ঘষা লাগলেই তেড়ে আসতেন। নিজের গাড়িটি ছিল তার প্রাণের চেয়েও প্রিয়। তাই মৃত্যুর পরও তার ইচ্ছা অনুযায়ী কবরেও গেলেন গাড়ির সঙ্গেই! অবাক হওয়ার মতো এই ঘটনাটি ঘটেছে চীনের হেবেই প্রদেশে।

কিউ নামে ওই চীনা ব্যক্তি বলেছিলেন, তিনি মারা গেলে তাকে যেনো নিজের প্রিয় সেডান গাড়িটির সঙ্গেই তাকে কবর দেওয়া হয়। তার সেই শেষ ইচ্ছেপূরণ করলো কিউয়ের পরিবার!

কিউ নিজের গ্রামেই মারা যান। তারপর তার উইল অনুযায়ী, কিউয়ের এক দশকেরও পুরনো সেডান গাড়ির মধ্যে তার মৃতদেহটি ঢুকিয়ে কবর দেওয়া হয়। এমন একটি খবর এখন নেট দুনিয়ায় ভাইরাল।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...