The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

আপনার স্মার্টফোনও হয়ে উঠতে পারে ওয়েবক্যাম!

প্রযু্ক্তি যতো উন্নত হচ্ছে ততোই নানা সুযোগ সুবিধা বৃদ্ধি পাচ্ছে। আপনিও নিতে পারেন সেইসব সুযোগ সুবিধা

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ আপনার স্মার্টফোনও হয়ে উঠতে পারে ওয়েবক্যাম! কিন্তু কীভাবে হবে? আজ এই প্রতিবেদনটি তৈরি করা হয়েছে বিষয়টি জানার জন্যই। তাহলে আর কী আসুন জেনে নেওয়া যাক বিষয়টি।

আপনার স্মার্টফোনও হয়ে উঠতে পারে ওয়েবক্যাম! 1

প্রযু্ক্তি যতো উন্নত হচ্ছে ততোই নানা সুযোগ সুবিধা বৃদ্ধি পাচ্ছে। আপনিও নিতে পারেন সেইসব সুযোগ সুবিধা। আজ আলোচনা করা হবে ওয়েবক্যাম সম্পর্কে। ওয়েবক্যাম মানেই কম্পিউটার মনিটর-এর ওপর লাগিয়ে রাখা ক্যামেরা। কিন্তু এই ওয়েবক্যাম এর অনেকগুলো দিক রয়েছে। প্রযুক্তির মধ্যে এই ওয়েবক্যাম বর্তমানে আমাদের অফিস কিংবা বাসা বাড়িতে বিশেষভাবে কাজে আসছে। তবে ইন্টারনেট-এর ব্যাপক প্রসার ও ব্যবহারের কারণে পার্সোনাল কম্পিউটারের মতো যন্ত্রে ওয়েবক্যাম খুবই প্রয়োজনীয় একটি যন্ত্রাংশে পরিণত হয়েছে বর্তমান সময়ে। ওয়েবক্যাম মূলত এক ধরনের ভিডিও ক্যামেরা যা কম্পিউটার হতে কম্পিউটার নেটওয়ার্কে স্থিরচিত্র ও ভিডিও ফুটেজ সরবরাহ করে থাকে।

আমরা সোশ্যাল মিডিয়ায় দেখে থাকি অনেকেই কম্পিউটারের সামনে বসে লাইভে কথা-বার্তা বলছেন, এটি ওয়েবক্যাম-এর সাহায্যেই হয়ে থাকে। আমাদের স্মার্টফোনের যে ফ্রন্ট ক্যামেরাটি রয়েছে সেটিকে আমরা স্মার্টফোনের ওয়েবক্যামেরা বলতে পারি। কারণ হলো, কম্পিউটারে একটি ফিজিক্যাল ওয়েবক্যামেরা ব্যবহারের মাধ্যমে অনলাইন ভিডিও স্ট্রিমিং করা হয়, সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে মানুষের সঙ্গে যোগাযোগ রক্ষা করা হয়, ঠিক একইভাবে স্মার্টফোনের ফ্রন্ট ক্যামেরা দিয়েও এইসব করা সম্ভব।

আপনার কম্পিউটারে এক্সটারনালভাবে বা ল্যাপটপে ইন্টারনালভাবে যে ওয়েবক্যামেরাটি রয়েছে এটি হলো একটি সাধারণ ভিডিও ক্যামেরা। ওয়েবক্যামটি মূলত একটি সাধারণ ইউএসবি কেবল-এর সঙ্গে কম্পিউটারে যুক্ত একটি ক্যামেরা মডিউল। সে কেবল স্হিরচিত্র ও ফুটেজ কম্পিউটারে প্রেরণ করে। তারপর সে ডেটা কীভাবে ব্যবহার করা হবে না হবে, তার দায়িত্ব কম্পিউটারের হাতেই থাকে।

তবুও অনেক সময় এমন পরিস্হিতি হয়, আপনার কাছে একটি কম্পিউটার কিংবা ল্যাপটপ রয়েছে, তবে তাতে কোনও রকম ক্যামেরা নেই। এই পরিস্হিতি সামাল দেওয়ার জন্য আপনি আপনার স্মার্টফোনটিকে ব্যবহার করতে পারেন ওয়েবক্যাম হিসেবে। এক্ষেত্রে আমরা যে সফটওয়্যারটিকে ব্যবহার করবো, তার নাম DroidCam ও IP Webcam।

কীভাবে করবো এই কাজ?

# প্রথমে আপনার মোবাইলফোন ও আপনার কম্পিউটার একই ওয়াইফাই নেটওয়ার্কের সঙ্গে কানেক্ট করুন।

# এরপর ড্রয়েডক্যাম-এর একটি এনড্রয়েড অ্যাপলিকেশন গুগল প্লে স্টোর হতে ডাউনলোড ও তা পরে ইনস্টল করে নেবো।

# এরপর আপনার কম্পিউটারের সফটওয়্যারটি ওপেন করবেন, সঙ্গে এন্ড্রয়েড মোবাইলটিতেও ওপেন করতে হবে। এখন আপনার মোবাইলফোনে একটি আইপি শো করবে।

# এবার এই আইপিটা কম্পিউটার সফটওয়্যারটিতে বসিয়ে দিতে হবে। তখন আপনার এন্ড্রয়েড স্মার্টফোন আপনার ওয়্যারলেস ওয়েবক্যাম হয়ে যাবে। কিন্তু আপনি সফটওয়্যারটিতে ইউএসবি কেবল সিস্টেমে সেট করে দিয়ে, ইউএসবি কেবলের মাধ্যমেও মোবাইলফোনকে ওয়েবক্যাম হিসেবে ব্যবহার করতে পারবেন।

এখন একনজরে দেখে নিন কীভাবে IP Webcam ব্যবহার করবেন সেটি:

# আপনার মোবাইলফোন ও আপনার কম্পিউটার একই ওয়াইফাই নেটওয়ার্কে কানেক্ট করতে হবে।

# IP Webcam অ্যাপটি প্লে স্টোর হতে আপনার মোবাইলফোনে ইন্সটল করুন।

# ব্যাকগ্রাউন্ডে চালিত অন্যসব ক্যামেরা অ্যাপ বন্ধ করুন। প্রয়োজন হলে Force Stop করুন।

# IP Webcam অ্যাপটি চালু করুন ও নিচে স্ক্রোল করুন এবং এখন Start Server এ ক্লিক করুন।

# এখন অ্যাপটিতে ক্যামেরা চালু হয়ে যাবে ও আপনি একটি URL দেখতে পাবেন সেখানে।

# এখন সেই URL টি আপনার কম্পিউটার হতে যেকোনো ব্রাউজারের মধ্যে লিখে তা সার্চ করুন।

# ব্রাউজারে আপনি একটি drop down মেনুর পাশে Video Renderer দেখতে পাবেন, তখন সেখানে Browser সিলেক্ট করুন।

# এর নিচে তখন আপনি Audio renderer দেখতে পাবেন, সেখানে আপনি HTML Wav সিলেক্ট করুন।

এভাবে আপনি খুব সহজেই আপনার স্মার্টফোনও হয়ে উঠতে পারে ওয়েবক্যাম!

Loading...