The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

মাত্র ৩০ সেকেণ্ডে ১০০ লাফ দিয়ে বিশ্বরেকর্ড! [ভিডিও]

দড়ি লাফের একটি প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়ে ওয়ার্ল্ড রেকর্ড গড়লেন চীনের এক তরুণ

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ আমরা সবাই জানি গ্রামগঞ্জে যে দড়ি লাফ খেলা হয়। আর সেই খেলাটিই এখন চলে গেছে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে। দড়ি লাফের একটি প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়ে ওয়ার্ল্ড রেকর্ড গড়লেন চীনের এক তরুণ। সংবাদ মাধ্যমের খবরে জানা গেছে, চীনের ওই নাগরিকের এই রেকর্ড গিনেস বুকেও স্থান পেয়েছে। সম্প্রতি চীনের সাংহাইয়ে আয়োজিত হয় ইন্টারন্যাশনাল জাম্প রোপ প্রতিযোগিতা। সেই প্রতিযোগিতায় মাত্র ৩০ সেকেণ্ডে জোড়া পায়ে চীনের এক তরুণ লাফিয়েছেন ১০০ বার! জানা যায় যে, ওই তরুণের এই সাফল্য একটি বিশ্ব রেকর্ড সৃষ্টি করেছে। ইতিপূর্বে কেও আর এই রেকর্ড করতে পারেননি।

মাত্র ৩০ সেকেণ্ডে ১০০ লাফ দিয়ে বিশ্বরেকর্ড! [ভিডিও] 1

আমরা সবাই জানি গ্রামগঞ্জে যে দড়ি লাফ খেলা হয়। আর সেই খেলাটিই এখন চলে গেছে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে। দড়ি লাফের একটি প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়ে ওয়ার্ল্ড রেকর্ড গড়লেন চীনের এক তরুণ। সংবাদ মাধ্যমের খবরে জানা গেছে, চীনের ওই নাগরিকের এই রেকর্ড গিনেস বুকেও স্থান পেয়েছে। সম্প্রতি চীনের সাংহাইয়ে আয়োজিত হয় ইন্টারন্যাশনাল জাম্প রোপ প্রতিযোগিতা। সেই প্রতিযোগিতায় মাত্র ৩০ সেকেণ্ডে জোড়া পায়ে চীনের এক তরুণ লাফিয়েছেন ১০০ বার! জানা যায় যে, ওই তরুণের এই সাফল্য একটি বিশ্ব রেকর্ড সৃষ্টি করেছে। ইতিপূর্বে কেও আর এই রেকর্ড করতে পারেননি।

চীনের ওই প্রতিযোগিতায় ষষ্ঠ ডাবল ডাচ কনটেস্টে রেকর্ড করা ওই তরুণের নাম হলো ওয়াং শিসেন। বিশ্বের বিভিন্ন দেশ হতে আসা প্রায় ৪শ’ প্রতিযোগীকে পেরিয়ে এই রেকর্ড গড়েন ওয়াং শিসেন।

ওয়াং শিসেনের সঙ্গে সাংহাইয়ের ওই প্রতিযোগিতায় আরেকটি ইভেন্টে রেকর্ড করেছেন ১৭ বছরের অন্য একজন তরুণ। তার নাম হলো সেন ঝাউলিং। এক পায়ে লাফের ইভেন্টে মাত্র ৩০ সেকেণ্ডে তিনি ২২৮ বার লাফিয়েছেন, যা ছিলো সর্বোচ্চ।

তবে জানা যায় যে, ২০১৬ সালে একই ইভেন্টে ঝাউলিং ২০৮ বার লাফিয়েছিলেন। গত ১৯ নভেম্বর সাংহাইয়ে ২২৮ বার লাফ মেরে নিজের রেকর্ড নিজেই ভেঙেছিলেন তিনি।

উল্লেখ্য, দড়ি লাফ খেলা মূলত আমাদের দেশের গ্রামের একটি খেলা। গ্রামের বিশেষ করে মেয়েরা এই দড়ি লাফ খেলে থাকেন। এটি আমাদের দেশের একটি প্রাচীনতম খেলা হিসেবে পরিগণিত হয়ে থাকে। গ্রামের মেয়েরা এই দড়ি লাফ খেলায় বেশি পারদর্শি। তবে ইদানিংকালে এই খেলা আর দেখা যায় না। যুগের সঙ্গে সঙ্গে যেনো এইসব ঐতিহ্যবাহি খেলাও হারিয়ে যেতে বসেছে।

দেখুন ভিডিওটি

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...