The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

মেয়ের বিয়েতে দাওয়াত করা সেই রিকশাচালকের সঙ্গে দেখা করলেন মোদি

গত ১২ ফেব্রুয়ারি মঙ্গলের মেয়ের বিয়ে হয়। এর পূর্বেই প্রধানমন্ত্রীর চিঠি হাতে পান রিকশাচালক মঙ্গল কেওয়াত

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ মেয়ের বিয়েতে দাওয়াত করা সেই রিকশাচালকের সঙ্গে দেখা করলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। দেশটির বারানসির ওই রিকশাচালককের নাম মঙ্গল কেওয়াত। বারানসির রিকশাচালক মঙ্গল কেওয়াত নিজের মেয়ের বিয়েতে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে। সেই সময় নিমন্ত্রণে যেতে না পারলেও চিঠি দিয়ে শুভেচ্ছা জানান প্রধানমন্ত্রী। এবার সেই এলাকায় সফরে গিয়ে রিকশাচালকের সঙ্গে সাক্ষাৎ করলেন নরেন্দ্র মোদি।

মেয়ের বিয়েতে দাওয়াত করা সেই রিকশাচালকের সঙ্গে দেখা করলেন মোদি 1

মেয়ের বিয়েতে দাওয়াত করা সেই রিকশাচালকের সঙ্গে দেখা করলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। দেশটির বারানসির ওই রিকশাচালককের নাম মঙ্গল কেওয়াত। বারানসির রিকশাচালক মঙ্গল কেওয়াত নিজের মেয়ের বিয়েতে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে। সেই সময় নিমন্ত্রণে যেতে না পারলেও চিঠি দিয়ে শুভেচ্ছা জানান প্রধানমন্ত্রী। এবার সেই এলাকায় সফরে গিয়ে রিকশাচালকের সঙ্গে সাক্ষাৎ করলেন নরেন্দ্র মোদি।

১৬ ফেব্রুয়ারি একদিনের সংক্ষিপ্ত সফরে মোদি তার লোকসভার আসন বারানসিতে গিয়েছিলেন। তিনি এই সময় মঙ্গলের সঙ্গে দেখা করেন এবং তার পরিবারের খোঁজখবর নেন। এর পাশাপাশি তার পরিবারের কুশল কামনাও করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

গত ১২ ফেব্রুয়ারি মঙ্গলের মেয়ের বিয়ে হয়। এর পূর্বেই প্রধানমন্ত্রীর চিঠি হাতে পান রিকশাচালক মঙ্গল কেওয়াত। চিঠিতে বিয়ের জন্য মঙ্গলের মেয়েকে আশীর্বাদ দেন এবং শুভেচ্ছা জানান। এই চিঠি পেয়ে আনন্দে আপ্লুত হয়ে পড়েন মঙ্গল কেওয়াত। তিনি তখন বলেছিলেন, ‘আমি উত্তর পাবো বলে কখনওই ভাবিনি। তবে মোদীর চিঠি পেয়ে আমরা অত্যন্ত খুশি হয়েছি। মেয়ের বিয়েতে আগত অতিথিদের সেই চিঠিও দেখিয়েছি আমি।’

তখন মঙ্গল এবং তার স্ত্রী রানু দেবি জানিয়েছিলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে তারা দেখা করতে চান এবং নিজেদের দুর্দশার কথাও জানাতে চান।’ তাই নিজের সংসদীয় এলাকায় সফরে এসে সেই অনুরোধ রেখেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। একদিনের বারানসী সফরে এসে শত ব্যস্ততার মধ্যেও সময় বের করে রিকশাচালক এবং তাঁর স্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন নরেন্দ্র মোদি।

মঙ্গল কেওয়াত তার নিজের গ্রামের গঙ্গার পাড় পরিষ্কার করার উদ্যোগ নিয়েছেন। নিজে সচেতন হতে এবং আশপাশের মানুষকে সচেতন করে স্বচ্ছ ভারত অভিযানে অবদান রাখছেন ওই রিকশাচালক মঙ্গল কেওয়াত। সেই খবরও পেয়েছেন নরেন্দ্র মোদি। সেই কারণে মঙ্গল কেওয়াতকে ধন্যবাদও জানিয়েছেন নরেন্দ্র মোদি।

স্বয়ং প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে এমন ব্যবহার এবং প্রশংসা পেয়ে আবেগে আত্মহারা রিকশাচালক মঙ্গল কেওয়াত। শুধু মঙ্গলই নয় এই খবরে আনন্দিত বারানসি এলাকার সাধারণ জনগণও।

তথ্যসূত্র : এনডিটিভি

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...