The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

ভিভোর নতুন বাজেট স্মার্টফোন ভিভো ওয়াই২০

এই স্মার্টফোনটিতে ভিভো যুক্ত করেছে সদ্য নির্মিত কোয়ালকম স্নাপড্রাগন ৪৬০

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ এবার দেশের বাজারে ৫০০০ এমএএইচ ব্যাটারিসহ আরও একটি স্মার্টফোন নিয়ে এলো বহুজাতিক চীনা প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান ভিভো। এর মডেল হলো ভিভো ওয়াই২০।

ভিভোর নতুন বাজেট স্মার্টফোন ভিভো ওয়াই২০ 1

এবার দেশের বাজারে ৫০০০ এমএএইচ ব্যাটারিসহ আরও একটি স্মার্টফোন নিয়ে এলো বহুজাতিক চীনা প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান ভিভো। এই স্মার্টফোনটির মডেল ভিভো ওয়াই২০। দাম পড়বে ১৪ হাজার ৯৯০ টাকা। এই স্মার্টফোনটিতে ভিভো যুক্ত করেছে সদ্য নির্মিত কোয়ালকম স্নাপড্রাগন ৪৬০, যা সেরা পারফরম্যান্সের পাশাপাশি সুদীর্ঘ ব্যাটারি ব্যাকআপও নিশ্চিত করবে।

এই প্রযুক্তির ফরে, ভিভো ওয়াই২০ দিয়ে এক চার্জে টানা ১৬ ঘন্টা পর্যন্ত মুভি স্ট্রিমিং করা যাবে। এছাড়াও টানা ১১ ঘন্টা পর্যন্ত অনলাইন গেইম খেলার সুবিধাও পাওয়া যাবে এই ভিভো ওয়াই২০ হতে।

গত সেপ্টেম্বর মাস হতে গ্রাহকরা বাংলাদেশের বাজারে ভিভো ওয়াই২০ স্মার্টফোনটি কিনতে পারছেন। ভিভো ওয়াই২০ স্মার্টফোনের ডিসপ্লেটি ৬ দশমিক ৫১ ইঞ্চি। এতে ভিভো যুক্ত করেছে ’আই প্রোটেকশান মোড’। দীর্ঘ সময় স্মার্টফোনের দিকে তাকিয়ে থাকার কারণে চোখের ক্ষতিও হয়ে থাকে। স্মার্টফোনের আই প্রোটেকশান মোড চোখকে এই ক্ষতি হতে রক্ষা করবে।

তাছাড়াও ভিভো ওয়াই২০ স্মার্টফোনে আলট্রা গেমিং মোড যুক্ত করা হয়েছে। যে কারণে গ্রাহকরা এই স্মার্টফোনটিতে প্রো স্ট্যান্ডার্ড গেমিং অভিজ্ঞতা পাবেন। তাছাড়াও ভিভো ওয়াই২০ ফোনের আরেকটি বৈশিষ্ট্য হলো- এর সাইড ফিঙ্গারপ্রিন্ট প্রযুক্তি। ভিভো ওয়াই২০ এর মাধ্যমে প্রথমবারের মতো বাংলাদেশে এই বাজেটে সাইড ফিঙ্গারপ্রিন্ট প্রযুক্তির ব্যবহার করলো ভিভো। যা ০.২২ সেকেন্ডে অনস্ক্রিন ও ০.৩৭ সেকেন্ডে অফস্ক্রিন আনলক করা যাবে।

এই স্মার্টফোনটির র‌্যাম ৪ জিবি ও রম ৬৪ জিবি। তাছাড়াও এটি ২৫৬ জিবি পর্যন্ত বাড়ানো সম্ভব। ভিভো ওয়াই২০ স্মার্টফোনের সামনে রয়েছে ৮ মেগাপিক্সেলের একটি এবং পেছনে ৩টি ক্যামেরা রয়েছে। পেছনের ক্যামেরাগুলো যথাক্রমে ১৩, ২ ও ২ মেগাপিক্সেল।

বাংলাদেশে ভিভো ওয়াই২০ পাওয়া যাবে দুটি রঙে অবশিডিয়ান ব্ল্যাক ও নেবুলা ব্লু রঙে।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর

অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...