ডিভিশন বাতিল ॥ ফাঁসির সেলে সাকা

দি ঢাকা টাইমস্‌ ডেস্ক ॥ একাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধে অভিযুক্ত বিএনপি নেতা সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর বিরুদ্ধে ফাঁসির রায় ঘোষণার পর তার ডিভিশন বাতিল করা হয়েছে। তাকে এখন রাখা হয়েছে ফাঁসির সেলে।

SAKA-4

কাশিমপুরের কেন্দ্রীয় কারাগার-১ এ বন্দি যুদ্ধাপরাধী সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর সকল ভিআইপি সুবিধা প্রত্যাহার করা হয়েছে এবং রাতেই তাকে কয়েদীর পোশাক পড়িয়ে ত্রিশ নম্বর সেলে পাঠানো হয়েছে।

কারাগার সূত্র বলেছে, রায় শেষে প্রথমে আদালত থেকে তাকে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হয় এবং পরে সেখান থেকে পুলিশ প্রহরায় প্রিজনভ্যানে করে মঙ্গলবার রাত ৯:৩০ টার সময় আবার কাশিমপুরে স্থানান্তর করা হয়। এর আগে মঙ্গলবার আদালতে হাজির করতে সোমবার তাকে রাজধানীর কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হয়।

জানা যায়, কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগার-১-এ বিএনপি নেতা সালাউদ্দিন কাদের এবং জামায়াত নেতা দেলাওয়ার হোসেন সাঈদী, আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদ ও জেএমবি নেতা সালাউদ্দিন সালেহীনসহ ৭৮জন ফাঁসির আসামি রয়েছেন।

উল্লেখ্য, ফাঁসির রায়ের আগে সাকা এ কারাগারেই চিত্রা ভবনে ভিআইপি মর্যাদায় ছিলেন। গত বছরের ২৩ সেপ্টেম্বর সাকা চৌধুরীকে এ কারাগারে পাঠানো হয়। কারা নিয়মানুযায়ী তার ভিআইপি সুবিধা রহিত করা হয়েছে বলে জানান জেলার ।

গতকাল মঙ্গলবার তার বিরুদ্ধে যুদ্ধাপরাধের মামলায় ফাঁসির রায় দেওয়া হয়েছে রাউজানে কুন্ডেশ্বরী ঔষধালয়ের মালিক নূতন চন্দ্র সিংহকে হত্যা, সুলতানপুর ও ঊনসত্তরপাড়ায় হিন্দু বসতিতে গণহত্যা, এবং হাটহাজারীর এক আওয়ামীলীগ নেতা ও তার ছেলেকে অপহরণ করে খুনের দায়ে।

এ ছাড়াও হত্যা, গণহত্যার পরিকল্পনা সহযোগিতা এবং লুটপাট, অগ্নিসংযোগ ও দেশান্তরে বাধ্য করার মতো তিনটি অভিযোগে বিএনপি’র স্থায়ী কমিটির ওই সদস্যকে ২০বছর করে কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। এছাড়া অপহরণ ও নির্যাতনের দুইটি ঘটনায় পাঁচ বছর করে কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। আন্তর্জাতিক ট্রাইব্যুনাল-১-এর চেয়ারম্যান বিচারপতি এটিএম ফজলে কবীর মঙ্গলবার ফাঁসির রায় ঘোষণা করেন।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...