এমন একটি শহর তৈরি হচ্ছে যেখানে থাকবে না মানুষ!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ মানববিহীন এক পরিকল্পিত শহর যুক্তরাষ্ট্রের নিউ মেক্সিকো! ৩৫ হাজার নাগরিকের ধারণক্ষমতাসম্পন্ন এই শহরে মানুষ ছাড়া থাকবে ব্যবসা কেন্দ্র, আবাসিক এলাকা, শপিং মল এমনকি চার্চও।

People & made in the city

সংবাদ মাধ্যমের খবরে বলা হয়, যুক্তরাষ্ট্রে নিউ মেক্সিকোর মরুভূমিতে বানানো হচ্ছে এমন এক নতুন শহর। ৩৫ হাজার নাগরিকের ধারণক্ষমতাসম্পন্ন এই শহরে। এখানে থাকবে পৃথক ব্যবসা কেন্দ্র, আবাসিক এলাকা, শপিং মল এবং চার্চও। তবে এখানে কখনই থাকবে কোনো মানুষ। বরং নতুন উদ্ভাবিত প্রযুক্তির কার্যক্ষমতা নিয়ে এখানে চলবে নানা পরীক্ষা-নীরিক্ষা।

ব্রিটিশ ট্যাবলয়েড মিররের এক প্রতিবেদনের বরাত দিয়ে সংবাদ মাধ্যমের খবরে বলা হয়, ১৫ বর্গ মাইল জায়গা জুড়ে ১শ’ কোটি মার্কিন ডলার খরচ করে ‘সাইট (সেন্টার ফর ইনোভেশন, টেস্টিং অ্যান্ড ইভ্যালুয়েশন)’ শহরটি প্রস্তুত করছে একটি টেলিকমিউনিকেশন্স প্রতিষ্ঠান। কেবলমাত্র নতুন প্রযুক্তি পরীক্ষার জন্যই প্রস্তুত হচ্ছে এই শহরটি।

এমন একটি শহর তৈরির মূল লক্ষ্য হচ্ছে এমন একটি পরিবেশ তৈরি করা, যাতে করে দৈনন্দিন জীবনে বাধা সৃষ্টি না করে নতুন পণ্য, সেবা ও অন্যান্য প্রযুক্তির কার্যক্ষমতা যাচাই এবং প্রমাণ করা যায়।

চালকবিহীন রোবোটিক গাড়ির কার্যক্ষতা হতে শুরু করে বিকল্প শক্তির উৎসের মাধ্যমে বিশাল পরিসের বাসস্থানের জন্য প্রয়োজনীয় বিদ্যুৎ শক্তি সরবরাহের প্রকল্প নিয়ে মূলত পরীক্ষা চালানো হবে এই ‘সাইট’-এ। আশা করা হচ্ছে, ২০১৮ সালের মধ্যেই শেষ হবে মরুভূমির এই শহরটির নির্মাণ সম্পন্ন হবে।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...