ট্রাম্পের নামে এবার টয়লেট পেপার!

মেক্সিকোর এক আইনজীবী টয়লেট পেপারের ব্র্যান্ডের নাম দিয়েছেন “ট্রাম্প”

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক॥ প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী হওয়ার পর থেকেই সারা বিশ্ব জুড়ে নানা তর্ক-বিতর্কের জন্ম দিয়ে আসছেন ট্রাম্প। প্রেসিডেন্ট হওয়ার পরও তাকে নিয়ে সমালোচনা, ব্যঙ্গ, বিদ্রুপের শেষ নেই।

ট্রাম্পের বিভিন্ন নীতি ও মন্তব্যের বিরোধিতা করতে অনেকেই বেছে নিয়েছেন অভিনব সব পন্থা। এবার মেক্সিকোর এক আইনজীবী টয়লেট পেপারের ব্র্যান্ডের নাম দিয়েছেন “ট্রাম্প”।

অ্যান্টোনিও বাত্তাগলিয়া নামের এই আইনজীবী চলতি বছরের মধ্যেই টয়লেট টিস্যুর এই ব্র্যান্ডটি বাজারজাত করতে যাচ্ছেন। তিনি ঘোষণা দিয়েছেন, এই টয়লেট পেপার থেকে আয় করা অর্থের ৩০ শতাংশ ব্যয় করা হবে আমেরিকা থেকে বিতাড়িত মেক্সিকানদের কল্যাণে।

উল্লেখ্য যে, ট্রাম্পের অভিবাসন নীতির কারণেই বহু সংখ্যক মেক্সিকানকে আমেরিকা থেকে মেক্সিকোতে ফিরে আসতে হয়েছে।

টয়লেট পেপারটির মোড়কের প্রোটোটাইপ ইতোমধ্যে প্রকাশিত হয়েছে। এতে দেখা যায় – ট্রাম্পের একটি কার্টুন চিত্র আঙুল উচিয়ে আছে, যার পাশে লেখা একটি স্লোগান “সীমানা ছাড়া কোমল অনুভূতি”

বাত্তাগলিয়া বলেন, মেক্সিকানদের নিয়ে ট্রাম্প বিভিন্ন সময়ে যে কটূক্তি করেছেন তার প্রতিবাদ করতেই এই টয়লেট পেপার বাজারজাত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তিনি।

ট্রাম্প বলেছিলেন, “মেক্সিকো থেকে যাদের পাঠানো হয় (মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে) তারা খুব একটা ভালো নয়। তারা মাদক দ্রব্য নিয়ে আসছে। তারা অপরাধ নিয়ে আসছে। এরা ধর্ষক। তবে এদের কেউ কেউ ভালো”

বাত্তাগলিয়া বলেন, “কথাটা আমাকে রাগিয়ে দিয়েছিল। এরপর আমি এমন কিছু করতে চাইছিলাম যা একটা প্রভাব সৃষ্টি করতে পারে। তবে বিদ্রুপ করে বা প্রতিশোধ না নিয়ে আমি চেয়েছিলাম ইতিবাচক কিছু করতে।”

প্রথমে বাত্তাগলিয়া চেয়েছিলেন ট্রাম্পের নামে কোনো পোশাক বা জুতা বাজারজাত করতে। তবে তিনি খোঁজ নিয়ে জানতে পারেন, এই দুইটি ক্ষেত্রে ট্রাম্প নামের ট্রেডমার্ক পূর্বেই ট্রাম্প অর্গানাইজেশন নিয়ে নিয়েছে। এরপর তিনি ওই নামে টয়লেট পেপার বাজারজাত করার পরিকল্পনা নেন। এই উদ্দেশ্যে তিনি বিনিয়োগ করবেন প্রায় ২১ হাজার ডলার।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...