নারীদের স্তন ক্যান্সার থেকে বাঁচতে ৭টি উপায়

দি ঢাকা টাইমস্‌ ডেস্ক॥ বাংলাদেশে বর্তমানে নারীদের স্তন ক্যান্সার হওয়ার প্রবণতা আশঙ্কাজনক হারে বেড়ে গেছে। ফলে নারীদের জন্য আমাদের আজকের ব্রেস্ট ক্যান্সার বা স্তন ক্যান্সার প্রতিরোধ নিয়ে বিশেষ এই প্রতিবেদন।


101001042611_breast-cancer-awareness

বিগত ২৫ বছর যাবৎ বাংলাদেশ, ভারতসহ দক্ষিণ এশিয়ার দেশ সমূহে নারীদের স্তন ক্যানসার হওয়ার প্রবণতা আশংকাজনক হারে বেড়ে গেছে। ভারতের টাটা মেমোরিয়াল হাসপাতালের এক প্রতিবেদনে দেখা যায়, বিশ্বব্যাপী নানান ক্যান্সারের মৃত্যু হারের মাঝে স্তন ক্যান্সারের কারণে মারা যাওয়া রোগীর সংখ্যা সবচেয়ে বেশী।

যুক্তরাষ্ট্রের স্তন ক্যান্সার চ্যারিটি এর চেয়ারম্যান লাস্টার বার বলেন, “স্তন ক্যান্সার হওয়ার কারণসমূহের মাঝে সাধারণত একজন নারীর জীবন-যাপন প্রণালী বিশেষ ভূমিকা রাখে। আপনি যদি আপনার জীবন-যাপন প্রণালীতে নিয়ন্ত্রণ আনেন, তবে স্তন ক্যান্সারের ঝুঁকি অনেকটাই কমানো যায়।”

স্তন ক্যানসার থেকে বাঁচতে এখানে ৭টি উপায় উল্লেখ করা হলঃ

ঘরের কাজ করুনঃ বিশেষজ্ঞরা বলেন যে নারী কাজের মাঝে থাকবে, তার স্তন ক্যান্সারের ঝুঁকি অনেকটাই কমে যাবে। ঘরের কাজ বা ব্যায়ামের ফলে আপনার শরীরের চর্বি অনেকটা কমবে। শরীরের বাড়তি চর্বি টেস্টেস্থেরন হরমোন নিঃসরণ ঘটায় যা আপনার শরীরে টিউমার গঠনে বিশেষ ভূমিকা রাখে। একজন নারীকে অবশ্যই প্রতিদিন ৩০ মিনিট করে ঘরের কাজে হাত লাগাতে হবে, এতে ২০% স্তন ক্যান্সারের ঝুঁকি কমে যায়।

শিশুকে বুকের দুধ পান করানঃ আপনি যখন মা হবেন অবশ্যই আপনার শিশুকে নিজের বুকের দুধ পান করাবেন। অনেকেই এটাকে ঝামেলা মনে করে শিশুকে বুকের দুধ না খাইয়ে বাজারের শিশু খাবার কিনে খাওয়ান, ফলে শিশুর শারীরিক বিকাশ না হওয়ার পাশাপাশি মায়ের স্তন ক্যান্সারের ঝুঁকিও বেড়ে যায়। অপরদিকে শিশুকে বুকের দুধ খাওয়ালে মায়ের স্তন ক্যান্সারের ঝুঁকি কমবে।

নারীরা মদ্য পান করবেন নাঃ নিয়মিত এলকোহল পানের ফলে নারীর স্তন ক্যান্সারের ঝুঁকি অনেকটাই বেড়ে যায়। এজন্য নারীদের উচিত মদ্যপান থেকে একেবারে বিরত থাকা ।একেবারেই যদি বিরত রাখতে না পারেন, তাহলে এলকোহল জাতীয় পানীয়ের পরিমাণ কম করে গ্রহণ করা উচিত।

কর্মজীবীরা রাতের শিফটে কাজ পরিহার করুনঃ যেসকল নারীরা চাকুরী করেন তারা অবশ্যই সপ্তাহে টানা ৩ দিন রাতের শিফটে কাজ করবেন না। গবেষণায় দেখা গেছে, রাতের শিফটে কাজ করা নারীদের স্তন ক্যান্সারে আক্রান্ত হওয়ার প্রবণতা বেশী।

কোলেস্টেরল কমানো: খাবারে কম কোলেস্টেরল গ্রহণ করুন। অধিক পরিমাণ কোলেস্টেরল আপনার স্বাস্থ্যের জন্য স্তন ক্যান্সারের ঝুঁকি বয়ে আনবে। খেয়াল রাখবেন সব সময় আপনার খাবারে যেন কোলেস্টেরলের পরিমাণ পরিমিত থাকে।

অস্বাস্থ্যকর কেমিক্যাল ব্যবহার ত্যাগ করুনঃ আপনি খাবারে কখনোই কৃত্রিম রং ব্যবহার করবেন না, বাইরের খাবার গ্রহণের ক্ষেত্রে খেয়াল রাখবেন যাতে এতে কৃত্রিম রং না থাকে। এছাড়া ওভেনে খাবার গরম করার ক্ষেত্রে প্ল্যাস্টিক কন্টেইনার ব্যবহার পরিহার করুন।

সূর্যের আলোতে হাঁটুনঃ সূর্যের আলো স্তন ক্যান্সারের ঝুঁকি কমাতে সবচেয়ে বেশী উপকারী। একজন নারী যদি প্রতিদিন সময় করে রোদে হাঁটেন, তবে তাঁর স্তন ক্যান্সার হওয়ার ঝুঁকি অনেকটাই কমে যাবে। সূর্যের আলোর সংস্পর্শে মানব শরীর এলে আমাদের শরীরে ভিটামিন ডি৩ তৈরি হয় যা স্তন ক্যান্সার প্রতিরোধে কার্যকরী ভূমিকা রাখে। তবে এক্ষেত্রে স্কিন ক্যান্সারের বিষয়টি মাথায় রেখে পরিমিত পরিমাণে সূর্যের আলোতে হাঁটুন। সকালের দিকে সূর্যের আলোতে আলট্রাভায়োলেট রশ্মি কম থাকে, ফলে এ সময় সূর্যের আলোতে হাঁটা স্বাস্থ্য সম্মত।

সূত্রঃ টাইমস অব ইন্ডিয়া

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...