ভিক্ষা দিয়ে সমালোচনায় পড়লেন অস্ট্রেলীয় প্রধানমন্ত্রী!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ ভিক্ষুককে দান করেছেন। ভেবেছেন, দানকরা নিশ্চয়ই খারাপ কিছু নয়। তবে ভিক্ষুককে ভিক্ষা দিয়ে চরম সমালোচনার মুখে পড়েছেন অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী ম্যালকম টার্নবুল।

Australian Prime Minister & begging

গত বৃহস্পতিবার অর্থনীতি সম্পর্কিত একটি গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকে যাওয়ার পথে মেলবোর্নের রাস্তায় এক ভিক্ষুককে দেখে তার সঙ্গে হাত মেলান ম্যালকম টার্নবুল। পরে তার কফি কাপে তাকে অস্ট্রেলীয় ৫ ডলার দেন।

এই ছবিটি প্রকাশ পাওয়ার পর সমাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর ব্যাপক সমালোচনা শুরু হয়েছে। বিপুল সম্পদের মালিক টার্নবুলের ৫ ডলার দেওয়াকে অনেকেই দেখছেন কৃপণতা হিসেবে। ডেইলি মেইলের অস্ট্রেলিয়ান সংস্করণে তাকে ‘কৃপণ ব্যক্তি’ হিসেবে বর্ণনা করা হয়েছে!

আবার কেও কেও প্রধানমন্ত্রীর ভিক্ষা দেওয়ার সমালোচনা করছেন। মেলবোর্নের লর্ড মেয়র রবার্ট ডোয়েল বলেছেন, ভিক্ষা দিলে ভিক্ষুকদের মাদক সেবনের প্রবণতা বাড়ে ও তাতে দারিদ্র্য আরও বৃদ্ধি পায়। টার্নবুলকে ভিক্ষার পরিবর্তে স্বেচ্ছাসেবী সংস্থায় দান করার পরামর্শ দিয়েছেন তিনি।

আবার কেও কেও এও বলেছেন, ক্যামেরার কারণে এই উদারতা দেখাতে গেছেন প্রধানমন্ত্রী!

তবে অনেকেই টার্নবুলকে সমর্থনও করেছেন। টুইটারে একব্যক্তি লিখেছেন, আপনি এমন একজনকে দেখছেন, যিনি আরও দিতে পারেন। আমি এমন একজনকে দেখছি, যিনি দিয়েছেন।

ভিক্ষা দেওয়া নিয়ে সমালোচনার কারণে এ ঘটনার জন্য দুঃখ প্রকাশ করে পরের দিন (শুক্রবার) স্থানীয় একটি রেডিও স্টেশনকে তিনি বলেছেন, এটি ছিল একটি মানবিক প্রতিক্রিয়া। তবে এতে কেও হতাশ হলে তাতে আমি দুঃখিত।

উল্লেখ্য, গত জুলাইয়ে তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ নির্বাচনের মধ্যদিয়ে পুনরায় ক্ষমতায় যাওয়ার পর অনেক বিষয়ে সমালোচনার মুখে পড়তে হয়েছে প্রধানমন্ত্রী ম্যালকম টার্নবুলকে।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...