এই বিড়ালটি ৯ বছর ধরে দোকান চালাচ্ছে!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ বিড়ালকে আমরা তুচ্ছ জ্ঞান করে থাকি। কিন্তু বিড়াল হয়ে জন্মেছে বলে কি তার কোনও দায়িত্বই থাকতে নেই? এই বিড়ালটি ৯ বছর ধরে দোকান চালাচ্ছে!

cat-and-shop

সংবাদ মাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, গোটা একটা দোকান থাকে এই বিড়ালের জিম্মায়। তবে কীভাবে এটি সম্ভব?

৯ বছর বয়স হলো এই বিড়াল বোবোর। জন্মের কয়েকদিন পর হতে এই দোকানেই মানুষ থুড়ি বিড়াল হয়েছে সে। এই বিড়ালটি নিউ ইয়র্কের চায়না টাউনের একটি মাল্টি গুড‌্স স্টোরের দোকানদার।

cat-and-shop-2

এই বিড়াল বোবো যখন মাত্র কয়েকদিনের তখন তাকে এই দোকানে আনে এখানকারই একজন কর্মচারী। তিনি মারা গেলেও বোবো এখানেই রয়ে গিয়েছে।

৯ বছর ধরে কোনও ছুটি নেয়নি বোবো। স্যালারি? না, সেটারও কোনও দরকার নেই তার। তবে মাস গেলে মাইনে না নিলেও কাজে কোনও ফাঁকি নেই বোবোর। প্রতিদিন সকালে দোকান খোলার পর হতেই শুরু হয় চরম ব্যস্ততা। দোকানের মূল দরজার সামনে ‘গুড বয়’ হয়ে বসে থাকে সে খরিদদারকে নিজস্ব ভঙ্গিমায় অভিবাদন জানানোর জন্য।

cat-and-shop-3

আবার মানুষের কথাও বুঝতে পারে সে। কার কী লাগবে তা শোনার পর ক্রেতাকে তার প্রয়োজনীয় জিনিসটি সামনে নিয়ে যায়। সব মিলিয়ে দেখভাল করে গোটা দোকানের!

শুধু তাই নয়, কেও দোকান হতে কিছু চুরি করছে কি না, কিংবা সেলফি তুলছে কি না সবটাই খেয়াল রাখে বোবো। কোনও কিছু অপছন্দ হলেই লোম ফুলিয়ে নিজের অবস্থান জানান দেয় ‘নট অ্যালাউড’।

cat-and-shop-4

অ্যানি নামে এই দোকানেরই আরেক কর্মী তাকে ছোট হতে প্রশিক্ষণ দিয়েছেন। এখন তার তত্ত্বাবধানেই বোবো এই দোকানে কাজ করে। সত্যিই অসাধারণ এক বিড়াল বটে!

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...