সিরিয়াকে নিয়ে এ কী ঘটছে?

দেশটি এখন পরিণত হয়েছে নানা শক্তির পরস্পরের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ক্ষেত্র হিসেবে

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ বিশ্ব বিবেক আজ কোন পথে? এই প্রশ্ন আসতেই পারে। কারণ সিরিয়াকে নিয়ে যে কাণ্ড ঘটাচ্ছেন বিশ্বের মাথাওয়ালা দেশগুলো তাতে স্তম্বিত হতে হয়!

ক্ষমতার দাপট দেখাতে গিয়ে মানুষ আজ কতখানি অমানবিক হতে পারে তার দৃষ্টান্ত হলো সিরিয়ায় হামলা। একের পর এক হামলা চালানো হচ্ছে দেশটির উপর। আর সেই দৃশ্য দেখছে সৌদি আরবসহ আরও অনেক মুসলিম দেশ! আজ কেনো সিরিয়ার উপর এই হামলা চালানো হচ্ছে?

গত ১৪ এপ্রিল সিরিয়ায় পশ্চিমা ক্ষেপনাস্ত্র হামলার পর প্রেসিডেন্ট বাশার আসাদ এখন কোথায় রয়েছে তাও নিশ্চিত নয়। প্রেসিডেন্ট ভবন হতেও নিশ্চিত করে কিছু বলা হয়নি। সিরিয়ায় গৃহযুদ্ধ এখন এমন এক জটিল আকারে পৌঁছেছে যে, বড় শক্তিধর দেশগুলো সেখানকার নানা সশস্ত্র গোষ্ঠীর মধ্যেদিয়ে প্রক্সি যুদ্ধে জড়িয়ে পড়ছে। পরিস্থিতি যেদিকে যাচ্ছে- তাতে অনেকেই প্রশ্ন করেছেন, এবার কি পরাশক্তিগুলোর নিজেদের মধ্যেই যুদ্ধ বেধে যাবে?

সিরিয়ার সরকার ও তার বিরোধীদের মধ্যে যে সংঘাত হতে এই সংকটের সূচনায় হয়েছিল- তা এখন প্রায় অপ্রাসঙ্গিক হয়ে গেছে। দেশটি এখন পরিণত হয়েছে নানা শক্তির পরস্পরের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ক্ষেত্র হিসেবে।

বাইরের যেসব শক্তিগুলো আগে কূটনীতির পথে চলছিল, তারা এখন সরাসরি সামরিক হস্তক্ষেপের পথে নেমে পড়েছে। মাঝখানে সিরিয়ার নীরিহ মানুষগুলো অকাতরে জীবন দিচ্ছে। মুসলমানদের উপর বিমান হামলা চালানো হচ্ছে। বহু শিশু ও মহিলাসহ বেসামরিক লোকের প্রাণহানি ঘটছে। আমেরিকা রাশিয়া তাদের শক্তি দেখাতে তৎপর। এমন অবস্থার নিরসন খুব শীঘ্রই হবে বলেও মনে হচ্ছে না। তবে আর কতদিন এমন নির্মমতার শিকার হবেন সিরিয়ার মুসলিম জনগণ? সে প্রশ্ন এখন বিশ্বের প্রতিটি মানুষের সামনে উঠে এসেছে। কবে শেষ হবে বিশ্বব্যাপী এইসব যুদ্ধ নামের দামামা? নাকি শেষ পর্যন্ত তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধ শুরু হবে? সেই প্রশ্নই এখন সবার মনে।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...