The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

যারা অনিদ্রায় ভূগছেন তাদের ঘুম পাড়িয়ে দেবে মোবাইল অ্যাপ!

ঘুমনোর কয়েক ঘণ্টা পূর্বে আপনার ফোনটিকে চেস্ট বেল্ট দিয়ে বুকে বেঁধে নিতে হবে

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ সারাদিন কর্মব্যস্ততা পার করে রাতে যখন দু’চোখের পাতা এক হতে চায় না, তখন এর চেয়ে কষ্টকর আর কিছু হতে পারে না। তবে এবার যারা অনিদ্রায় ভূগছেন তাদের ঘুম পাড়িয়ে দেবে মোবাইল অ্যাপ!

যারা অনিদ্রায় ভূগছেন তাদের ঘুম পাড়িয়ে দেবে মোবাইল অ্যাপ! 1

সারা রাত এ পাশ-ও পাশ করে সময় কাটানো, ঘন ঘন পানির পিপাসা, বারবার বাথরুমে যাওয়ার অভিজ্ঞতা অনেকেরই রয়েছে। তবে জেগে জেগে ভোর দেখার দিন এখন হয়তো শেষ হতে চলেছে। এখন থেকে বলা যায় নিশ্চিন্তে ঘুম পাড়িয়ে দেবে আপনার মোবাইল ফোন। আপনি ঠিকই পড়ছেন, যে মোবাইলকে ঘুম নষ্টের অন্যতম প্রধান কারণ হিসাবে এতোদিন দেখা হতো, এবার সেই মোবাইলই আপনাকে স্বাচ্ছন্দে ঘুম এনে দেবে।

স্লিপরেট অ্যাপ কিভাবে কাজ করে

স্মার্টফোনে স্লিপ রেট অ্যাপ ডাউনলোড করে ঘুমনোর কয়েক ঘণ্টা পূর্বে আপনার ফোনটিকে চেস্ট বেল্ট দিয়ে বুকে বেঁধে নিতে হবে। ভয় নেই, চেস্ট বেল্টের সাহায্যে ফোন বুকে লেগে থাকলে হার্ট কিংবা ফুসফুসের ক্ষতি হয় না। বরং এই ধরনের চেস্ট বেল্টগুলো বানানোই হয়েছে ডাক্তারি পদ্ধতিতে। এই বেল্ট আপনার হৃদয়ের স্পন্দন, শ্বাস-প্রশ্বাসের গতি মেপে সমস্যার কারণ এবং গভীরতা বুঝে বেশ কিছু নির্দেশ দিতে থাকবে।

যেমন ধরুন, ঘুমানোর এক ঘণ্টা আগে হালকা গরম পানিতে স্নান করার কথাও সে বলতে পারে। মন ভালো করা কোনো গান শুনতে বা হালকা বইপত্র পড়তেও বলতে পারে এই অ্যাপ। খোলা হাওয়ায় কয়েক পাক হেঁটে আসার পরামর্শও দিতে পারে এই অ্যাপ। মানসিক চাপ কিংবা উদ্বেগের কারণে ঘুম হচ্ছে না মনে হলে আপনাকে জানাতে পারে স্ট্রেস ম্যানেজমেন্টের কিছু পন্থাও। প্রয়োজন হলে মন ভালো করা হালকা কিছু সুর, কিছু গানও বাজাতে পারে এই অ্যাপই! তখন আপনার একমাত্র কাজ হলো, ঘুম আনতে অ্যাপের নির্দেশনা মেনে কাজগুলো করা।

এই অ্যাপটি আদোতে কতোটা কার্যকর হবে?

স্লিপ ম্যানেজমেন্টের চিকিৎসক শুভজিৎ ঘোষের এই বিষয়ে বলেছেন, গতিময় জীবনের সঙ্গে তাল মেলাতে গিয়ে একটি ফোনে আমরা অনেক সুবিধা পেতে চাই। প্রয়োজনীয় নিয়ম, ডায়েট এসব প্রতিদিন মানাও সম্ভব হয়ে ওঠে না। অনেকের ক্ষেত্রেই নানা কারণে ঘুমও আসে না। সেই সব বিষয়গুলো যদি কোনো অ্যাপ বলে দিতে পারে, তাহলে মন্দ কী? অ্যাপের নির্দেশগুলো ঘুমের পক্ষে বড়ই উপকারী। চিকিৎসকরাও সাধারণত ইনসমনিয়া কাটাতে এইসব উপায়ের কথাও অনেক সময় বলে থাকেন।

সংবাদ মাধ্যমের খবরে জানা গেছে, এই অ্যাপটি একজন চিকিৎসকেরই বানানো। ফ্যাট কমানো কিংবা স্ট্রেস ম্যানেজমেন্টের অন্যান্য অ্যাপের মতোই এই অ্যাপের ব্যবহারও সুস্থ শরীরে তেমন কোনো রকম ক্ষতি করবে না। স্লিপরেট অ্যাপ ব্যবহার করলেও সারা দিনের অনিয়মকেও বেশ নিয়ন্ত্রণ করতে হবে। চেষ্টা করতে হবে অ্যাপ এবং ঘুমের ওষুধ কোনোটারই যেনো আপনার প্রয়োজন না পড়ে। তবে স্লিপ অ্যাপনিয়ার মতো অসুখ থাকলে অবশ্যই ঘুম আনার বিষয়ে চিকিৎসকের পরামর্শ প্রয়োজন হবে। তাছাড়া ক্রনিক ইনসমনিয়ার রোগী হলে অ্যাপের নির্দেশ শুনে চললেও মাঝেমধ্যেই চেক আপ করানোও অত্যন্ত জরুরি একটি বিষয়। মোট কথা কোনো কিছুর উপর নির্ভরশীল না হওয়ায় মানুষের উত্তম। নির্ভরতা কমিয়ে সাধারণ ভাবে যা কিছু করা হবে সেটিই স্বাস্থ্যের জন্য সুখকর হবে।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...