আইএসের কাছে অস্ত্র বিক্রি করেছিলেন হিলারি: অ্যাসাঞ্জ [ভিডিও]

WASHINGTON, DC - JULY 11: Green Party presidential candidate Jill Stein, participates in a news conference at the National Press Club, on July 11, 2012 in Washington, DC. Ms. Stein announced that she has chosen Cheri Honkala to be her vice presidential running mate in the 2012 presidenttail election. (Photo by Mark Wilson/Getty Images)

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ মার্কিন প্রেসিডেন্ট প্রার্থী হিলারি ক্লিনটনকে নিয়ে নতুন এক বিতর্কের জন্ম দিলেন উইকিলিকস-এর প্রতিষ্ঠাতা জুলিয়ান অ্যাসাঞ্জ। তিনি বলেছেন, আইএসের কাছে অস্ত্র বিক্রি করেছিলেন হিলারি!

WASHINGTON, DC - JULY 11:  Green Party presidential candidate Jill Stein, participates in a news conference at the National Press Club, on July 11, 2012 in Washington, DC. Ms. Stein announced that she has chosen Cheri Honkala to be her vice presidential running mate in the 2012 presidenttail election.  (Photo by Mark Wilson/Getty Images)

অভিযোগ রয়েছে হিলারি যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্রমন্ত্রী থাকাকালে জঙ্গি সংগঠন আইএসের কাছে অস্ত্র বিক্রি করেছিলেন। বরাবরই এই অভিযোগ নাকচ করে আসছিলেন হিলারি। গোপন নথি ফাঁসকারী অ্যাসাঞ্জ সম্প্রতি এই ঘটনার সত্যতা দাবি করেছেন!

‘ডেমোক্র্যাসি নাউ’কে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে সম্প্রতি তিনি এই দাবি করেন। সূত্র হিসেবে তিনি দাবি করেন যে, হিলারি ক্লিনটনের ফাঁস হওয়া ইমেইল হতে এসব তথ্য পাওয়া গেছে।

অ্যাসাঞ্জ দাবি করে বলেছেন, পররাষ্ট্রমন্ত্রী থাকাকালে হিলারি যুক্তরাষ্ট্রের তৈরি অস্ত্র কাতারে চালানোর অনুমতি দিয়েছিলেন। মুসলিম ব্রাদারহুড এবং লিবিয়ার বিদ্রোহীদের প্রতি বন্ধুসুলভ দেশ হিসেবে সবসময়ই পরিচিত কাতার।

অ্যাসাঞ্জ অভিযোগ করেন, লিবিয়ার গাদ্দাফি সরকারকে উৎখাতেও ওইসব অস্ত্র ব্যবহার করা হয়। এমন প্রচেষ্টা চালানো হয়েছে, সিরিয়ার আসাদ সরকারকে উৎখাতেও! অ্যাসাঞ্জের দাবি হলো, এসব অস্ত্র এরপর ইসলামি জিহাদিদের হাতে পৌঁছে যায়।
অ্যাসাঞ্জের দাবি, ‘ফ্রেন্ডস অব সিরিয়া’ নামের কথিত একটি সংগঠনের মূল ভূমিকায় ছিলেন হিলারি ক্লিনটন। আবার সিরিয়ার রাজনৈতিক পট পরিবর্তনে সিআইএ যে উদ্যোগ নিয়েছিল তার পেছনেও ছিলেন হিলারি ক্লিনটন!

হিলারি ক্লিনটন পররাষ্ট্রমন্ত্রী থাকাকালে ব্যক্তিগত সার্ভার হতে ব্যবহার করা ৩০ হাজারেরও বেশি ইমেইল গত মার্চে ফাঁস করে উইকিলিকস। সাক্ষাৎকারে ‘ডেমোক্র্যাসি নাউ’র পক্ষ হতে হিলারির এসব ইমেইল ফাঁসের কারণ জানতে চাওয়া হয়। এর উত্তরে উইকিলিকস প্রধান জানান, এর উদ্দেশ্য হিলারির ভূমিকাকে প্রশ্নবিদ্ধ করা এমন নয়, বরং মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তর কীভাবে চলে তা তুলে ধরায় ছিল উদ্দেশ্য।

দেখুন ভিডিও

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...